ঢাকা ০৩:৫৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

অপপ্রচারের প্রতিবাদে মেরিনা জাহান কবিতা এমপির সংবাদ সম্মেলন

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:১৩:৪৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২
  • / ৫০৮ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

নিজস্ব প্রতিবেদক :

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে গরীব ও দুঃস্থদের জন্য ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের অনুকূলে বরাদ্দকৃত কম্বল গোডাউনে ফেরত দেওয়া নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ প্লাটফর্মে অপপ্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সিরাজগঞ্জ-৬ (শাহজাদপুর) আসনের এমপি অধ্যাপক মেরিনা জাহান কবিতা। শনিবার দুপুরে পৌর এলাকার শক্তিপুর মহল্লাস্থ এমপির বাসভবন নূরজাহান ভবনে এ সংবাদ সম্মেলন করেন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে অধ্যাপক মেরিনা জাহান কবিতা এমপি বলেন, ‘ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের অনুকূলে গরীব ও দুঃস্থদের জন্য বরাদ্দকৃত কম্বল গোডাউনে ফেরত দেয়া নিয়ে আমাকে জড়িয়ে যে অপপ্রচার চালানো হয়েছে তা একেবারেই অমূলক! আমি কোন ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে দুঃস্থদের মাঝে বিতরণের জন্য বরাদ্দকৃত কম্বল ফেরত চাইনি। আমার নাম জড়িয়ে যারা সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন প্লাটফর্মে বক্তব্য দিয়েছেন তারা সঠিক বিষয় উপস্থাপন করেননি। পূর্ব আক্রোশ থেকে তারা আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা প্রপাগান্ডা ছড়িয়েছেন। আমি বলেছি প্রতিটি ইউনিয়নে কম্বল বিতরণের সময় সেখানে আমি উপস্থিত থাকবো। তারা এটাকে বিকৃত করে উপস্থাপন করেছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘শাহজাদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টিকারীরা আমার বিরুদ্ধে নানাভাবে প্রপাগান্ডা ছড়ানোর চেষ্টা করছে। তারা মূলত গুহাবাসী ; তাই তারা আলো দেখে ভয় পায়। তারা চায় না কোন শিক্ষিত, মার্জিত রুচিশীল এবং সৃজনশীল মানুষ নেতৃত্ব থাকুক। এজন্যই তারা ঐক্যবদ্ধ আওয়ামী লীগের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টি করে খুবই নিম্নমানের কুরুচিপূর্ণ প্রপাগান্ডা ছড়িয়ে নিজেরা ফায়দা লোটার চেষ্টা করছে। আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’

এ সময় তিনি আরও বলেন, ‘গালা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল বাতেন দুর্নীতির সাথে জড়িত। তিনি ভিজিএফ থেকে শুরু করে কোন প্রকল্পের কাজ সঠিক ভাবে না করে দুর্নীতি করছেন। তার বিরুদ্ধে আমার কাছে একাধিক অভিযোগ রয়েছে। তাই, সঠিকভাবে অসহায় দুস্থরা যাতে কম্বল পায় সে জন্য আমি কম্বল বিতরণের সময় উপস্থিত থাকতে চেয়েছি। এটা দুর্নীতিগ্রস্থরা মেনে নিতে পারেনি। কারণ আমি থাকলে তারা দুর্নীতি করতে পারবে না। সবাই ফেরত দেয়নি, মাত্র ২জন দুর্নীতিবাজ চেয়ারম্যান দুর্নীতি করতে পারবে না বুঝতে পেরে ফেরত দিয়েছে।’

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার দুপুরে শাহজাদপুর উপজেলার ১৩টি ইউনিয়নের ৪ হাজার অসহায় শীতার্তদের মাঝে বিতরণের জন্য বরাদ্দকৃত কম্বল কয়েকটি ইউনিয়নের  চেয়ারম্যান ফেরত দেন। এই কম্বল ফেরত দেওয়াকে কেন্দ্র করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ নানা প্লাটফর্মে করা অপপ্রচারের প্রতিবাদে এ সংবাদ সম্মেলন করেন এমপি প্রফেসর মেরিনা জাহান কবিতা।

এ সংবাদ সম্মেলনে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

অপপ্রচারের প্রতিবাদে মেরিনা জাহান কবিতা এমপির সংবাদ সম্মেলন

আপডেট সময় : ০৫:১৩:৪৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক :

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে গরীব ও দুঃস্থদের জন্য ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের অনুকূলে বরাদ্দকৃত কম্বল গোডাউনে ফেরত দেওয়া নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ প্লাটফর্মে অপপ্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সিরাজগঞ্জ-৬ (শাহজাদপুর) আসনের এমপি অধ্যাপক মেরিনা জাহান কবিতা। শনিবার দুপুরে পৌর এলাকার শক্তিপুর মহল্লাস্থ এমপির বাসভবন নূরজাহান ভবনে এ সংবাদ সম্মেলন করেন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে অধ্যাপক মেরিনা জাহান কবিতা এমপি বলেন, ‘ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের অনুকূলে গরীব ও দুঃস্থদের জন্য বরাদ্দকৃত কম্বল গোডাউনে ফেরত দেয়া নিয়ে আমাকে জড়িয়ে যে অপপ্রচার চালানো হয়েছে তা একেবারেই অমূলক! আমি কোন ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে দুঃস্থদের মাঝে বিতরণের জন্য বরাদ্দকৃত কম্বল ফেরত চাইনি। আমার নাম জড়িয়ে যারা সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন প্লাটফর্মে বক্তব্য দিয়েছেন তারা সঠিক বিষয় উপস্থাপন করেননি। পূর্ব আক্রোশ থেকে তারা আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা প্রপাগান্ডা ছড়িয়েছেন। আমি বলেছি প্রতিটি ইউনিয়নে কম্বল বিতরণের সময় সেখানে আমি উপস্থিত থাকবো। তারা এটাকে বিকৃত করে উপস্থাপন করেছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘শাহজাদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টিকারীরা আমার বিরুদ্ধে নানাভাবে প্রপাগান্ডা ছড়ানোর চেষ্টা করছে। তারা মূলত গুহাবাসী ; তাই তারা আলো দেখে ভয় পায়। তারা চায় না কোন শিক্ষিত, মার্জিত রুচিশীল এবং সৃজনশীল মানুষ নেতৃত্ব থাকুক। এজন্যই তারা ঐক্যবদ্ধ আওয়ামী লীগের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টি করে খুবই নিম্নমানের কুরুচিপূর্ণ প্রপাগান্ডা ছড়িয়ে নিজেরা ফায়দা লোটার চেষ্টা করছে। আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’

এ সময় তিনি আরও বলেন, ‘গালা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল বাতেন দুর্নীতির সাথে জড়িত। তিনি ভিজিএফ থেকে শুরু করে কোন প্রকল্পের কাজ সঠিক ভাবে না করে দুর্নীতি করছেন। তার বিরুদ্ধে আমার কাছে একাধিক অভিযোগ রয়েছে। তাই, সঠিকভাবে অসহায় দুস্থরা যাতে কম্বল পায় সে জন্য আমি কম্বল বিতরণের সময় উপস্থিত থাকতে চেয়েছি। এটা দুর্নীতিগ্রস্থরা মেনে নিতে পারেনি। কারণ আমি থাকলে তারা দুর্নীতি করতে পারবে না। সবাই ফেরত দেয়নি, মাত্র ২জন দুর্নীতিবাজ চেয়ারম্যান দুর্নীতি করতে পারবে না বুঝতে পেরে ফেরত দিয়েছে।’

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার দুপুরে শাহজাদপুর উপজেলার ১৩টি ইউনিয়নের ৪ হাজার অসহায় শীতার্তদের মাঝে বিতরণের জন্য বরাদ্দকৃত কম্বল কয়েকটি ইউনিয়নের  চেয়ারম্যান ফেরত দেন। এই কম্বল ফেরত দেওয়াকে কেন্দ্র করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ নানা প্লাটফর্মে করা অপপ্রচারের প্রতিবাদে এ সংবাদ সম্মেলন করেন এমপি প্রফেসর মেরিনা জাহান কবিতা।

এ সংবাদ সম্মেলনে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।