ঢাকা ১০:৩০ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সেই ভবনের সেপটিক ট্যাংকে মিলল ৪ কেজি মাংস

অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ১১:১৮:১৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
  • / ৪২৮ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

কলকাতার নিউ টাউন থানার সঞ্জীবা আবাসনের বিইউ ৫৬ ফ্ল্যাটে বাংলাদেশের ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনারকে হত্যা করা হয়েছে। সেই ফ্ল্যাটের টয়লেটের সেপটিক ট্যাংক থেকে ৪ কেজি ‘টুকরো মাংস’ পাওয়া গেছে। তবে এগুলো আনারের মরদেহের খণ্ডাংশ কি না সেটা এখনো নিশ্চিত করেনি পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৮ মে) টয়লেটের সেপটিক ট্যাংকে তল্লাশি চালিয়ে ও সুয়ারেজ পাইপ ভেঙে এই মাংসগুলো উদ্ধার করেছে পশ্চিমবঙ্গের সিআইডি পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শী এবং আবাসনের সুয়ারেজ সিস্টেমের কর্মী সিদ্ধেশ্বর মন্ডল জানান, মাংসগুলো রাখা হয়েছে একটি কাচের জারে নুন মিশ্রিত পানিতে। মাংসের পিসগুলো অনেকটা পাকোড়ার পিস এর মত। এই মাংসের অংশগুলো ঘাতক কসাই জিহাদ হাওলাদার ওয়াশরুমের কমোডের ফেলে দিয়েছিল। তবে এটি বাংলাদেশের ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজিম আনারের খণ্ডিত দেহাংশের মাংস কি না তা জানার জন্য সেটি পাঠানো হয়েছে ফরেনসিক বিভাগে।

আলোচিত এই হত্যাকাণ্ডের তদন্ত করতে বর্তমানে কলকাতায় অবস্থান করছে ডিবিপ্রধানের নেতৃত্বে চার সদস্যের গোয়েন্দা প্রতিনিধি দল। মঙ্গলবার (২৮ মে) দিনের শুরুতে নিউটাউনের ওয়েস্টিন হোটেল থেকে বেরোনোর সময় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এই মামলার গতিপ্রকৃতি নিয়ে কথা বলেন হারুন অর রশীদ।

নিউজটি শেয়ার করুন

সেই ভবনের সেপটিক ট্যাংকে মিলল ৪ কেজি মাংস

আপডেট সময় : ১১:১৮:১৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪

কলকাতার নিউ টাউন থানার সঞ্জীবা আবাসনের বিইউ ৫৬ ফ্ল্যাটে বাংলাদেশের ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনারকে হত্যা করা হয়েছে। সেই ফ্ল্যাটের টয়লেটের সেপটিক ট্যাংক থেকে ৪ কেজি ‘টুকরো মাংস’ পাওয়া গেছে। তবে এগুলো আনারের মরদেহের খণ্ডাংশ কি না সেটা এখনো নিশ্চিত করেনি পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৮ মে) টয়লেটের সেপটিক ট্যাংকে তল্লাশি চালিয়ে ও সুয়ারেজ পাইপ ভেঙে এই মাংসগুলো উদ্ধার করেছে পশ্চিমবঙ্গের সিআইডি পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শী এবং আবাসনের সুয়ারেজ সিস্টেমের কর্মী সিদ্ধেশ্বর মন্ডল জানান, মাংসগুলো রাখা হয়েছে একটি কাচের জারে নুন মিশ্রিত পানিতে। মাংসের পিসগুলো অনেকটা পাকোড়ার পিস এর মত। এই মাংসের অংশগুলো ঘাতক কসাই জিহাদ হাওলাদার ওয়াশরুমের কমোডের ফেলে দিয়েছিল। তবে এটি বাংলাদেশের ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজিম আনারের খণ্ডিত দেহাংশের মাংস কি না তা জানার জন্য সেটি পাঠানো হয়েছে ফরেনসিক বিভাগে।

আলোচিত এই হত্যাকাণ্ডের তদন্ত করতে বর্তমানে কলকাতায় অবস্থান করছে ডিবিপ্রধানের নেতৃত্বে চার সদস্যের গোয়েন্দা প্রতিনিধি দল। মঙ্গলবার (২৮ মে) দিনের শুরুতে নিউটাউনের ওয়েস্টিন হোটেল থেকে বেরোনোর সময় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এই মামলার গতিপ্রকৃতি নিয়ে কথা বলেন হারুন অর রশীদ।