ঢাকা ০৯:০৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সারাদেশে জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান হলেন যারা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৮:৫৫:২৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ অক্টোবর ২০২২
  • / ৪৩১ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

সারাদেশে আজ জেলা পরিষদের নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ ও গণনা শেষে বিকেলে রিটার্নিং কর্মকর্তাগণ বেসরকারীভাবে ফলাফল ঘোষণা করেন।

সিরাজগঞ্জ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় চেয়ারম্যান পদে  আব্দুল লতিফ বিশ্বাস নির্বাচিত হয়েছে।

গাজীপুর: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত মোতাহার হোসেন মোল্লা (মোটরসাইকেল) ৩৬০ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী (আনারস মার্কা) ২৬৭ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছে।
খুলনা: জেলা পরিষদ নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হারুনুর রশীদ পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।
নীলফামারী: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মমতাজুল হক। তিনি আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৫৩৪ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা জয়নাল আবেদীন মোটরসাইকেল প্রতীকে পেয়েছেন ৩১৮ ভোট।

নড়াইল: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের সমর্থীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোস (আনারস) বিজয়ী হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ২৬০ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সৈয়দ ফয়জুল আমির লিটু(মোটরসাইকেল) পেয়েছেন ১৭৮ ভোট।
দিনাজপুর: জেলা পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে জেলা জাতীয় পাটির সভাপতি দেলোয়ার হোসেন নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ১১৬২ ভোট তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের প্রার্থী তৈয়ব উদ্দিন চৌধুরী পেয়েছেন ২২৬ ভোট।
নাটোর: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী এডভোকেট সাজেদুর রহমান খান পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। সাজেদুর রহমান খান চশমা প্রতীকে ৫৪৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয় পার্টির ড. মো. নুরুন্নবী মৃধা ঘোড়া প্রতীকে ২৪৭ ভোট পেয়েছেন।

নরসিংদী: জেলা পরিষদ নির্বাচনে ৬২২ ভোট পেয়ে  স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মনির হোসেন ভূইয়া (আনারস) চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও জেলা পরিষদ  প্রশাসক আব্দুল মতিন ভূইয়া (কাপপিরিচ) পেয়েছেন ৩৫০ ভোট।
মেহেরপুর: জেলা পরিষদের  চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম (কাপপিরিচ) প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর চেয়ে ৬২ ভোট বেশী পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছে। তার প্রাপ্ত মোট ভোট ১৭৭। একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান হাজী গোলাম রসুল পেয়েছেন ১১৫ ভোট।

জয়পুরহাট: নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগের প্রবীণ নেতা জয়পুরহাট সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ খাজা সামছুল আলম (আনারস) ৩৯১ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী জেলা জাসদের সভাপতি আবুল খায়ের মো. সাখাওয়াত হোসেন  (তালগাছ) পেয়েছেন  ৯৬ ভোট।
যশোর: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও সাবেক জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সাইফুজ্জামান পিকুল (ঘোড়া) ৯৫৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী মারুফ হোসেন কাজল (আনারস) পেয়েছেন ৩৪৪ ভোট।
হবিগঞ্জ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে বিপুল ভোটের ব্যবধানে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ও বর্তমান প্রশাসক ডা. মুশফিক হোসেন চৌধুরী চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। ঘোড়া প্রতীক নিয়ে তার প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা ৯৬১। প্রতিদ্বন্ধী জাতীয় পার্টি নেতা এডভোকেট মোল্লা আবু নঈম মো. শিবলী খায়ের আনারস প্রতীকে পান ৭৭ ভোট।

ঝিনাইদহ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী এম হারুন অর রশিদ আনারস প্রতীকে ৪৭৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান কনক কান্তি দাস তার চশমা প্রতীকে পেয়েছেন ৪৬৩ ভোট।
সুনামগঞ্জ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে ৮ ভোটের ব্যবধানে মোটর সাইকেল প্রতীকে স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ নুরুল হুদা মুকুট ২য় বারের মতো চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ৬১২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের সমর্থিত ড. খায়রুল কবির রুমেন পেয়েছেন ৬০৪ ভোট।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে জয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল মামুন সরকার। তিনি আনারস প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৮২২ ভোট। তার প্রতিদ্বন্ধী স্বতন্ত্র প্রার্থী শফিকুল আলম এমএসসি (মোটর সাইকেল) প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৫৫৩ ভোট।

পঞ্চগড়: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আব্দুল হান্নান শেখ। তিনি চশমা মার্কা নিয়ে ২৮৩ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম আবু তোয়বুর রহমান মোটর সাইকেল মার্কায় পেয়েছেন ২৩১ ভোট।
ময়মনসিংহ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী অধ্যাপক ইউসুফ খান পাঠান (আনারস) প্রতীক নিয়ে পূনরায় নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ১ হাজার ২২১ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী মহানগর জাসদের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক (চশমা) প্রতীকের প্রার্থী আমিনুল ইসলাম পেয়েছেন ৫৪৫ ভোট ।

মুন্সীগঞ্জ: আওয়ামী লীগের প্রার্থী আলহাজ মো. মহিউদ্দিন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

সাতক্ষীরা: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মো. নজরুল ইসলাম মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে ৬০৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দী প্রার্থী খলিলুল্লাহ ঝড়ু চিংড়ি প্রতীকে পেয়েছেন ৪৪৭ ভোট।
গোপালগঞ্জ: বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী মুন্সী আতিয়ার রহমান জেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।
ফেনী: বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী খায়রুল বশর মজুমদার তপন বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।
লক্ষ্মীপুর: জেলা পরিষদের বর্তমান প্রশাসক ও আওয়ামী লীগ মনোনীত  প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. শাহজাহান বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

(খবর- বাসস’র)

 

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

সারাদেশে জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান হলেন যারা

আপডেট সময় : ০৮:৫৫:২৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ অক্টোবর ২০২২

সারাদেশে আজ জেলা পরিষদের নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ ও গণনা শেষে বিকেলে রিটার্নিং কর্মকর্তাগণ বেসরকারীভাবে ফলাফল ঘোষণা করেন।

সিরাজগঞ্জ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় চেয়ারম্যান পদে  আব্দুল লতিফ বিশ্বাস নির্বাচিত হয়েছে।

গাজীপুর: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত মোতাহার হোসেন মোল্লা (মোটরসাইকেল) ৩৬০ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী (আনারস মার্কা) ২৬৭ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছে।
খুলনা: জেলা পরিষদ নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হারুনুর রশীদ পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।
নীলফামারী: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মমতাজুল হক। তিনি আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৫৩৪ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা জয়নাল আবেদীন মোটরসাইকেল প্রতীকে পেয়েছেন ৩১৮ ভোট।

নড়াইল: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের সমর্থীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোস (আনারস) বিজয়ী হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ২৬০ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সৈয়দ ফয়জুল আমির লিটু(মোটরসাইকেল) পেয়েছেন ১৭৮ ভোট।
দিনাজপুর: জেলা পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে জেলা জাতীয় পাটির সভাপতি দেলোয়ার হোসেন নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ১১৬২ ভোট তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের প্রার্থী তৈয়ব উদ্দিন চৌধুরী পেয়েছেন ২২৬ ভোট।
নাটোর: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী এডভোকেট সাজেদুর রহমান খান পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। সাজেদুর রহমান খান চশমা প্রতীকে ৫৪৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয় পার্টির ড. মো. নুরুন্নবী মৃধা ঘোড়া প্রতীকে ২৪৭ ভোট পেয়েছেন।

নরসিংদী: জেলা পরিষদ নির্বাচনে ৬২২ ভোট পেয়ে  স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মনির হোসেন ভূইয়া (আনারস) চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও জেলা পরিষদ  প্রশাসক আব্দুল মতিন ভূইয়া (কাপপিরিচ) পেয়েছেন ৩৫০ ভোট।
মেহেরপুর: জেলা পরিষদের  চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম (কাপপিরিচ) প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর চেয়ে ৬২ ভোট বেশী পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছে। তার প্রাপ্ত মোট ভোট ১৭৭। একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান হাজী গোলাম রসুল পেয়েছেন ১১৫ ভোট।

জয়পুরহাট: নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগের প্রবীণ নেতা জয়পুরহাট সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ খাজা সামছুল আলম (আনারস) ৩৯১ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী জেলা জাসদের সভাপতি আবুল খায়ের মো. সাখাওয়াত হোসেন  (তালগাছ) পেয়েছেন  ৯৬ ভোট।
যশোর: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও সাবেক জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সাইফুজ্জামান পিকুল (ঘোড়া) ৯৫৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী মারুফ হোসেন কাজল (আনারস) পেয়েছেন ৩৪৪ ভোট।
হবিগঞ্জ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে বিপুল ভোটের ব্যবধানে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ও বর্তমান প্রশাসক ডা. মুশফিক হোসেন চৌধুরী চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। ঘোড়া প্রতীক নিয়ে তার প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা ৯৬১। প্রতিদ্বন্ধী জাতীয় পার্টি নেতা এডভোকেট মোল্লা আবু নঈম মো. শিবলী খায়ের আনারস প্রতীকে পান ৭৭ ভোট।

ঝিনাইদহ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী এম হারুন অর রশিদ আনারস প্রতীকে ৪৭৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান কনক কান্তি দাস তার চশমা প্রতীকে পেয়েছেন ৪৬৩ ভোট।
সুনামগঞ্জ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে ৮ ভোটের ব্যবধানে মোটর সাইকেল প্রতীকে স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ নুরুল হুদা মুকুট ২য় বারের মতো চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ৬১২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের সমর্থিত ড. খায়রুল কবির রুমেন পেয়েছেন ৬০৪ ভোট।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে জয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল মামুন সরকার। তিনি আনারস প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৮২২ ভোট। তার প্রতিদ্বন্ধী স্বতন্ত্র প্রার্থী শফিকুল আলম এমএসসি (মোটর সাইকেল) প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৫৫৩ ভোট।

পঞ্চগড়: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আব্দুল হান্নান শেখ। তিনি চশমা মার্কা নিয়ে ২৮৩ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম আবু তোয়বুর রহমান মোটর সাইকেল মার্কায় পেয়েছেন ২৩১ ভোট।
ময়মনসিংহ: জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী অধ্যাপক ইউসুফ খান পাঠান (আনারস) প্রতীক নিয়ে পূনরায় নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ১ হাজার ২২১ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী মহানগর জাসদের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক (চশমা) প্রতীকের প্রার্থী আমিনুল ইসলাম পেয়েছেন ৫৪৫ ভোট ।

মুন্সীগঞ্জ: আওয়ামী লীগের প্রার্থী আলহাজ মো. মহিউদ্দিন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

সাতক্ষীরা: জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মো. নজরুল ইসলাম মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে ৬০৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দী প্রার্থী খলিলুল্লাহ ঝড়ু চিংড়ি প্রতীকে পেয়েছেন ৪৪৭ ভোট।
গোপালগঞ্জ: বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী মুন্সী আতিয়ার রহমান জেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।
ফেনী: বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী খায়রুল বশর মজুমদার তপন বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।
লক্ষ্মীপুর: জেলা পরিষদের বর্তমান প্রশাসক ও আওয়ামী লীগ মনোনীত  প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. শাহজাহান বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

(খবর- বাসস’র)