ঢাকা ১০:২০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সাগরে লঘুচাপ, রূপ নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:০৩:৫৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ অক্টোবর ২০২২
  • / ৪৫৩ বার পড়া হয়েছে

ফাইল ছবি

বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

নিজস্ব প্রতিবেদক : 
আন্দামান সাগর ও তৎসংলগ্ন দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগর এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। লঘুচাপটি ঘনীভূত হয়ে নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে। এরপর সেটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে।

আজ বৃহস্পতিবার (২০ অক্টোবর) আবহাওয়াবিদ মো. বজলুর রশিদ স্বাক্ষরিত এক আবহাওয়া সতর্কতায় এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বজলুর রশিদ বলেন, আগামীকাল বা পরশু লঘুচাপটি নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে। এরপর সেটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে। তবে এখনই নির্দিষ্ট করে কিছু বলা যাচ্ছে না।

ঘূর্ণিঝড় হলে বাংলাদেশে এর কেমন প্রভাব পড়বে এই প্রশ্নের উত্তরে বজলুর রশিদ বলেন, লঘুচাপটি অনেক দূরে অবস্থান করছে। এ কারণে এর দিক এখনো স্পষ্ট নয়।

তিনি বলেন, সাগরের ওই এলাকায় আজ সকালে লঘুচাপটি সৃষ্টি হয়েছে। চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে সাবধানতার সঙ্গে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে গভীর সাগরে বিচরণ না করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

এই আবহাওয়াবিদ আরো বলেন, আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে লঘুচাপটি আরও ঘনীভূত হয়ে নিম্নচাপে রূপ নিতে পারে। তারপর এর অবস্থান, গতি উল্লেখ করে সতর্কবার্তা জানানো হবে। ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নিলে উপকূলের কাছাকাছি দূরত্ব পর্যবেক্ষণ করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

এদিকে আজ সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার এক আবহাওয়া বার্তায় বলা হয়েছে, সারা দেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা অপরিবর্তিত থাকবে। আকাশ আংশিক মেঘলা থাকলেও সারা দেশে আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।

এর আগে চলতি মাসের দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসেও আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছিল, অক্টোবরে একটি থেকে দুটি লঘুচাপ হতে পারে, যার একটি রূপ নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে। ঘূর্ণিঝড় তৈরি হলে এবার তার নাম হবে ‘সিত্রাং’। এই নাম থাইল্যান্ড থেকে দেওয়া।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

সাগরে লঘুচাপ, রূপ নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে

আপডেট সময় : ০২:০৩:৫৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ অক্টোবর ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক : 
আন্দামান সাগর ও তৎসংলগ্ন দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগর এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। লঘুচাপটি ঘনীভূত হয়ে নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে। এরপর সেটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে।

আজ বৃহস্পতিবার (২০ অক্টোবর) আবহাওয়াবিদ মো. বজলুর রশিদ স্বাক্ষরিত এক আবহাওয়া সতর্কতায় এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বজলুর রশিদ বলেন, আগামীকাল বা পরশু লঘুচাপটি নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে। এরপর সেটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে। তবে এখনই নির্দিষ্ট করে কিছু বলা যাচ্ছে না।

ঘূর্ণিঝড় হলে বাংলাদেশে এর কেমন প্রভাব পড়বে এই প্রশ্নের উত্তরে বজলুর রশিদ বলেন, লঘুচাপটি অনেক দূরে অবস্থান করছে। এ কারণে এর দিক এখনো স্পষ্ট নয়।

তিনি বলেন, সাগরের ওই এলাকায় আজ সকালে লঘুচাপটি সৃষ্টি হয়েছে। চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে সাবধানতার সঙ্গে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে গভীর সাগরে বিচরণ না করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

এই আবহাওয়াবিদ আরো বলেন, আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে লঘুচাপটি আরও ঘনীভূত হয়ে নিম্নচাপে রূপ নিতে পারে। তারপর এর অবস্থান, গতি উল্লেখ করে সতর্কবার্তা জানানো হবে। ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নিলে উপকূলের কাছাকাছি দূরত্ব পর্যবেক্ষণ করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

এদিকে আজ সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার এক আবহাওয়া বার্তায় বলা হয়েছে, সারা দেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা অপরিবর্তিত থাকবে। আকাশ আংশিক মেঘলা থাকলেও সারা দেশে আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।

এর আগে চলতি মাসের দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসেও আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছিল, অক্টোবরে একটি থেকে দুটি লঘুচাপ হতে পারে, যার একটি রূপ নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে। ঘূর্ণিঝড় তৈরি হলে এবার তার নাম হবে ‘সিত্রাং’। এই নাম থাইল্যান্ড থেকে দেওয়া।