ঢাকা ১১:২০ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

শ্রীপুরে পীর আওলিয়ার মাজার জিয়ারত শেষে নির্বাচনী প্রচারণায় নামলেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী  শরিয়তউল্লাহ রাজন

আশরাফ হোসেন পল্টু, শ্রীপুর থেকে
  • আপডেট সময় : ১০:৫৮:০২ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪
  • / ৪১৭ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আসন্ন ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১৭ এপ্রিল বুধবার প্রার্থীতা যাচাই-বাছাই বৈধতা চুড়ান্ত হওয়ার পর পীর-আওলিয়ার মাজার জিয়ারতের মধ্যদিয়ে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা শুরু করলেন মাগুরার শ্রীপুর উপজেলা চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী শরিয়তউল্লাহ হোসেন মিয়া রাজন। তিনি ৭১’র রণাঙ্গনে শ্রীপুর বাহিনীর অধিনায়ক আকবর হোসেন মিয়ার কনিষ্ঠ পুত্র এবং শ্রীপুর উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি ও শ্রীকোল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কুতুবুল্লাহ হোসেন মিয়া কুটি’র ছোট ভাই। প্রথম পর্যায়ে তিনি শ্রীপুর বাহিনীর অধিনায়ক আকবর হোসেন মিয়ার কবর জিয়ারত করেন। এরপরই তিনি দ্বারিয়াপুর দরবার শরীফের পীর হুজুর শাহ সুফী তোয়াজউদ্দীন আহম্মেদ (রঃ) মাজার জিয়ারত করেন। একই দিন বিকেলে সব্দালপুর ইউনিয়নের নোহাটা গ্রামস্থ ওলি পাক হযরত গরীবুল্লাহ শাহ ওরফে গরীব শাহ দেওয়ান (রঃ) মাজার শরীফ এবং নাকোল ইউনিয়নের বরালিদহ জরিপ শাহ এর মাজার জিয়ারত করেন।

এ সময় তাঁর সাথে ছিলেন, শ্রীপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের উপজেলা মণ্ডলীর সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা জাকির হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান জাকির হোসেন কানন, দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শিহাবুল ইসলাম, দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন কৃষক লীগের সভাপতি আলাউদ্দিন, উপজেলা যুবলীগ নেতা তৈয়বুর রহমান খান, বিল্লাল মিয়া, দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মাজেদুল ইসলাম শিমুল, ইউপি সদস্য মিয়া ওহিদুল ইসলাম প্রমুখ।

এ সময় চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী শরিয়তউল্লাহ হোসেন মিয়া রাজন বলেন, আজ আমার উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থীতা বৈধতা চূড়ান্ত  হয়েছে। আমি আনুষ্ঠানিকভাবে আমার নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করার আগে প্রথমেই  আমি আমার মরহুম পিতা শ্রীপুর আঞ্চলিক বাহিনীর অধিনায়ক আকবর হোসেন মিয়ার কবর জিয়ারত করি৷ এরপর পর্যায়ক্রমে দ্বারিয়াপুর দরবার শরীফ, নোহাটা ও বরালিদহ দুই পীর আওলিয়ার মাজার জিয়ারত করে নির্বাচনী কার্যক্রম শুরু করছি। আমি সকলের দোয়া  ও ভালবাসা নিয়ে নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে জনগনের পাশে থেকে উন্নয়নমূলক কাজ করতে চাই ।

নিউজটি শেয়ার করুন

শ্রীপুরে পীর আওলিয়ার মাজার জিয়ারত শেষে নির্বাচনী প্রচারণায় নামলেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী  শরিয়তউল্লাহ রাজন

আপডেট সময় : ১০:৫৮:০২ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪

আসন্ন ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১৭ এপ্রিল বুধবার প্রার্থীতা যাচাই-বাছাই বৈধতা চুড়ান্ত হওয়ার পর পীর-আওলিয়ার মাজার জিয়ারতের মধ্যদিয়ে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা শুরু করলেন মাগুরার শ্রীপুর উপজেলা চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী শরিয়তউল্লাহ হোসেন মিয়া রাজন। তিনি ৭১’র রণাঙ্গনে শ্রীপুর বাহিনীর অধিনায়ক আকবর হোসেন মিয়ার কনিষ্ঠ পুত্র এবং শ্রীপুর উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি ও শ্রীকোল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কুতুবুল্লাহ হোসেন মিয়া কুটি’র ছোট ভাই। প্রথম পর্যায়ে তিনি শ্রীপুর বাহিনীর অধিনায়ক আকবর হোসেন মিয়ার কবর জিয়ারত করেন। এরপরই তিনি দ্বারিয়াপুর দরবার শরীফের পীর হুজুর শাহ সুফী তোয়াজউদ্দীন আহম্মেদ (রঃ) মাজার জিয়ারত করেন। একই দিন বিকেলে সব্দালপুর ইউনিয়নের নোহাটা গ্রামস্থ ওলি পাক হযরত গরীবুল্লাহ শাহ ওরফে গরীব শাহ দেওয়ান (রঃ) মাজার শরীফ এবং নাকোল ইউনিয়নের বরালিদহ জরিপ শাহ এর মাজার জিয়ারত করেন।

এ সময় তাঁর সাথে ছিলেন, শ্রীপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের উপজেলা মণ্ডলীর সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা জাকির হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান জাকির হোসেন কানন, দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শিহাবুল ইসলাম, দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন কৃষক লীগের সভাপতি আলাউদ্দিন, উপজেলা যুবলীগ নেতা তৈয়বুর রহমান খান, বিল্লাল মিয়া, দ্বারিয়াপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মাজেদুল ইসলাম শিমুল, ইউপি সদস্য মিয়া ওহিদুল ইসলাম প্রমুখ।

এ সময় চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী শরিয়তউল্লাহ হোসেন মিয়া রাজন বলেন, আজ আমার উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থীতা বৈধতা চূড়ান্ত  হয়েছে। আমি আনুষ্ঠানিকভাবে আমার নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করার আগে প্রথমেই  আমি আমার মরহুম পিতা শ্রীপুর আঞ্চলিক বাহিনীর অধিনায়ক আকবর হোসেন মিয়ার কবর জিয়ারত করি৷ এরপর পর্যায়ক্রমে দ্বারিয়াপুর দরবার শরীফ, নোহাটা ও বরালিদহ দুই পীর আওলিয়ার মাজার জিয়ারত করে নির্বাচনী কার্যক্রম শুরু করছি। আমি সকলের দোয়া  ও ভালবাসা নিয়ে নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে জনগনের পাশে থেকে উন্নয়নমূলক কাজ করতে চাই ।