ঢাকা ১১:৩৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

শেখ হাসিনা ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহর খেদমতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন – ধর্মমন্ত্রী

লিয়াকত হোসাইন লায়ন, জামালপুর প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৭:২২:২৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
  • / ৪৪২ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
ধর্মমন্ত্রী মোঃ ফরিদুল হক খান বলেছেন, আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতাটি যেন সত্যিকারঅর্থেই আন্তর্জাতিক মানের হয় সেটা নিশ্চিত করতে হবে। লাল-সবুজের পতাকার সম্মান বৃদ্ধি করতে হবে।
২৮মে মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির নসরুল হামিদ সম্মেলন কক্ষে প্রথম আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা উদ্বোধনে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।
ধর্মমন্ত্রী বলেন, বিশ্বের সকল বড় দেশ থেকে যেন এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করতে পারে সেদিকে বিশেষ ভাবে সচেষ্ট থাকতে হবে। প্রতিযোগিতার বিচারকগণকেও আন্তর্জাতিক মানের হতে হবে। প্রতিযোগিতার মূল্যায়ন কাজটি যেন শতভাগ ন্যায়ানুগ হয়, আমানতদারীর সাথে হয়- এদিকে সর্বোচ্চ দৃষ্টি রাখতে হবে। মূল্যায়ন প্রক্রিয়া যেন কোনভাবেই পক্ষপাতদুষ্ট না হয়, এটি নিয়ে কেউ যেন নেতিবাচক মন্তব্য করতে না পারে- এটা খেয়াল রাখতে হবে।
ধর্মমন্ত্রী আরো বলেন, আমাদের দেশের কুরআনের হাফেজগণ প্রতিবছরই বিশ্বের বিভিন্ন দেশে আয়োজিত প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে ১ম, ২য়, কিংবা ৩য় স্থানসহ বিভিন্ন পুরস্কারে ভুষিত হচ্ছে। এর ফলে বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হচ্ছে। সরকারিভাবে ইসলামিক ফাউন্ডেশন দেশব্যাপী কুরআন তিলাওয়াত প্রতিযোগিতা আয়োজন করে থাকে। এ আয়োজন আরো তৃণমূল পর্যায় থেকে ব্যাপক পরিসরে ও অধিক ফলপ্রসূভাবে আয়োজন করার পরিকল্পনা আমাদের রয়েছে।
ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহর খেদমতে সরকারের নানা কর্মসূচি তুলে ধরে ধর্মমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭৫ সালে ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশে ইসলাম প্রচার ও প্রসারের দ্বার উন্মোচন করেছিলেন। পিতার পদাঙ্ক অনুসরণ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহর খেদমতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। দেশের প্রতিটি জেলা-উপজেলায় একটি করে মোট ৫৬৪টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র স্থাপন প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে নির্মাণ কাজ শেষে ৩০০টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। অন্যগুলির কাজও চলমান রয়েছে। সারাদেশে ধর্মপ্রাণ মুসলিমদের জন্য এতগুলো মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ মুসলিম বিশ্বে এক বিরল ঘটনা। তিনি প্রথম আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা বাংলাদেশ ২০২৪ আয়োজনের উদ্যোগ গ্রহণ করায় আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সংস্থা, বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানান এবং এর সফলতা কামনা করেন।
স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও ঢাকা-২০ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব বেনজির আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পুলিশের সাবেক অতিরিক্ত আইজিপি মাহবুব হোসেন, জামিয়া ইকরা বাংলাদেশের মহাসচিব মাওলানা আরিফ উদ্দিন মারুফ, আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সংস্থা সভাপতি আল্লামা ক্বারী আবু রায়হান ও মহাসচিব শায়েখ সাদ সাইফুল্লাহ মাদানী প্রমুখ।
উল্লেখ্য, আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সংস্থা বাংলাদেশ কর্তৃক প্রথমবারের মতো এই আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। পরে এই প্রতিযোগিতার সাফল্য কামনা করে মোনাজাত করা হয়।
বাখ//আর

নিউজটি শেয়ার করুন

শেখ হাসিনা ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহর খেদমতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন – ধর্মমন্ত্রী

আপডেট সময় : ০৭:২২:২৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
ধর্মমন্ত্রী মোঃ ফরিদুল হক খান বলেছেন, আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতাটি যেন সত্যিকারঅর্থেই আন্তর্জাতিক মানের হয় সেটা নিশ্চিত করতে হবে। লাল-সবুজের পতাকার সম্মান বৃদ্ধি করতে হবে।
২৮মে মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির নসরুল হামিদ সম্মেলন কক্ষে প্রথম আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা উদ্বোধনে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।
ধর্মমন্ত্রী বলেন, বিশ্বের সকল বড় দেশ থেকে যেন এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করতে পারে সেদিকে বিশেষ ভাবে সচেষ্ট থাকতে হবে। প্রতিযোগিতার বিচারকগণকেও আন্তর্জাতিক মানের হতে হবে। প্রতিযোগিতার মূল্যায়ন কাজটি যেন শতভাগ ন্যায়ানুগ হয়, আমানতদারীর সাথে হয়- এদিকে সর্বোচ্চ দৃষ্টি রাখতে হবে। মূল্যায়ন প্রক্রিয়া যেন কোনভাবেই পক্ষপাতদুষ্ট না হয়, এটি নিয়ে কেউ যেন নেতিবাচক মন্তব্য করতে না পারে- এটা খেয়াল রাখতে হবে।
ধর্মমন্ত্রী আরো বলেন, আমাদের দেশের কুরআনের হাফেজগণ প্রতিবছরই বিশ্বের বিভিন্ন দেশে আয়োজিত প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে ১ম, ২য়, কিংবা ৩য় স্থানসহ বিভিন্ন পুরস্কারে ভুষিত হচ্ছে। এর ফলে বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হচ্ছে। সরকারিভাবে ইসলামিক ফাউন্ডেশন দেশব্যাপী কুরআন তিলাওয়াত প্রতিযোগিতা আয়োজন করে থাকে। এ আয়োজন আরো তৃণমূল পর্যায় থেকে ব্যাপক পরিসরে ও অধিক ফলপ্রসূভাবে আয়োজন করার পরিকল্পনা আমাদের রয়েছে।
ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহর খেদমতে সরকারের নানা কর্মসূচি তুলে ধরে ধর্মমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭৫ সালে ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশে ইসলাম প্রচার ও প্রসারের দ্বার উন্মোচন করেছিলেন। পিতার পদাঙ্ক অনুসরণ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহর খেদমতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। দেশের প্রতিটি জেলা-উপজেলায় একটি করে মোট ৫৬৪টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র স্থাপন প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে নির্মাণ কাজ শেষে ৩০০টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। অন্যগুলির কাজও চলমান রয়েছে। সারাদেশে ধর্মপ্রাণ মুসলিমদের জন্য এতগুলো মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ মুসলিম বিশ্বে এক বিরল ঘটনা। তিনি প্রথম আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা বাংলাদেশ ২০২৪ আয়োজনের উদ্যোগ গ্রহণ করায় আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সংস্থা, বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানান এবং এর সফলতা কামনা করেন।
স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও ঢাকা-২০ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব বেনজির আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পুলিশের সাবেক অতিরিক্ত আইজিপি মাহবুব হোসেন, জামিয়া ইকরা বাংলাদেশের মহাসচিব মাওলানা আরিফ উদ্দিন মারুফ, আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সংস্থা সভাপতি আল্লামা ক্বারী আবু রায়হান ও মহাসচিব শায়েখ সাদ সাইফুল্লাহ মাদানী প্রমুখ।
উল্লেখ্য, আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সংস্থা বাংলাদেশ কর্তৃক প্রথমবারের মতো এই আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। পরে এই প্রতিযোগিতার সাফল্য কামনা করে মোনাজাত করা হয়।
বাখ//আর