ঢাকা ০৫:৩৮ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

যারা শিশুকে হত্যা করে,তাদের আমরা ঘৃণা করি : এমপি বাদশা 

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:৫৩:১৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ অক্টোবর ২০২২
  • / ৪৯১ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
রাজশাহী ব্যুরোঃ
বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী-২ আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা বলেছেন,শেখ রাসেলকে যারা হত্যা করেছে;তারা দেশ ও জাতির শত্রু।ইতিহাস তাদের কখনো ক্ষমা করবে না।যারা শিশুকে হত্যা করে,তাদের আমরা ঘৃণা করি। শেখ রাসেলের জন্মদিনে আজ মঙ্গলবার (১৮ অক্টোবর) সকালে রাজশাহী কোর্ট অ্যাকাডেমিতে শহরের সর্বপ্রথম শেখ রাসেল স্কুল অব ফিউচারের উদ্বোধন উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।এর আগে সেখানে শেখ রাসেলের জন্মদিন উপলক্ষে কেক কাটা হয়।
দেশে প্রযুক্তিনির্ভর প্রজন্ম গড়তে শেখ রাসেলের নামে আরও ৫ হাজার ডিজিটাল ল্যাব উদ্বোধন করা হয়েছে।আজ সকালে গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে এসব ল্যাবের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।একইসাথে ৩০০টি শেখ রাসেল স্কুল অব ফিউচারেরও উদ্বোধন করা হয়।
৩০০টি শেখ রাসেল স্কুল অব ফিউচারের মধ্যে রাজশাহী মহানগর এলাকার জন্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে একটি।বিভিন্ন দিক বিবেচনায় এমপি ফজলে হোসেন বাদশার সুপারিশে ল্যাবটি পায় রাজশাহী কোর্ট অ্যাকাডেমি।আধুনিক এমন প্রযুক্তি পেয়ে আনন্দে উদ্বেলিত স্কুলটির শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।
অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে এমপি বাদশা বলেন,আপনার এই উদ্যোগের জন্য আমাদের সন্ত্মানেরা অ্যানিমেশন,রোবটিক্সসহ আধুনিক প্রযুক্তির সঙ্গে পরিচিত হবে।এর মাধ্যমে প্রগতিশীল সমাজ গঠন ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের সন্ত্মানদের ভালো কাজে অনুপ্রাণিত করা সম্ভব।
রাজশাহীর প্রতিটি স্কুলেই এমন ল্যাব প্রয়োজন উলেস্নখ করে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির এই সদস্য বলেন, এ শহর শিক্ষা নগরী।এখানে একটি স্কুল দিয়ে এই যাত্রা শুরম্ন করা হলো।শহরের প্রতিটি স্কুলেই যেন এই ল্যাব হয়- সে বিষয়ে আমার সর্বাত্মক প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।
অনুষ্ঠানে রাজশাহী কোর্ট অ্যাকাডেমির গভর্নিং বডির সভাপতি রফিকুজ্জামান বেল্টু, মহানগর ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামানিক দেবু,৭ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মতিউর রহমান মতি, স্কুলের প্রধান শিক্ষক শফিকুল ইসলামসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

যারা শিশুকে হত্যা করে,তাদের আমরা ঘৃণা করি : এমপি বাদশা 

আপডেট সময় : ০৫:৫৩:১৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ অক্টোবর ২০২২
রাজশাহী ব্যুরোঃ
বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী-২ আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা বলেছেন,শেখ রাসেলকে যারা হত্যা করেছে;তারা দেশ ও জাতির শত্রু।ইতিহাস তাদের কখনো ক্ষমা করবে না।যারা শিশুকে হত্যা করে,তাদের আমরা ঘৃণা করি। শেখ রাসেলের জন্মদিনে আজ মঙ্গলবার (১৮ অক্টোবর) সকালে রাজশাহী কোর্ট অ্যাকাডেমিতে শহরের সর্বপ্রথম শেখ রাসেল স্কুল অব ফিউচারের উদ্বোধন উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।এর আগে সেখানে শেখ রাসেলের জন্মদিন উপলক্ষে কেক কাটা হয়।
দেশে প্রযুক্তিনির্ভর প্রজন্ম গড়তে শেখ রাসেলের নামে আরও ৫ হাজার ডিজিটাল ল্যাব উদ্বোধন করা হয়েছে।আজ সকালে গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে এসব ল্যাবের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।একইসাথে ৩০০টি শেখ রাসেল স্কুল অব ফিউচারেরও উদ্বোধন করা হয়।
৩০০টি শেখ রাসেল স্কুল অব ফিউচারের মধ্যে রাজশাহী মহানগর এলাকার জন্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে একটি।বিভিন্ন দিক বিবেচনায় এমপি ফজলে হোসেন বাদশার সুপারিশে ল্যাবটি পায় রাজশাহী কোর্ট অ্যাকাডেমি।আধুনিক এমন প্রযুক্তি পেয়ে আনন্দে উদ্বেলিত স্কুলটির শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।
অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে এমপি বাদশা বলেন,আপনার এই উদ্যোগের জন্য আমাদের সন্ত্মানেরা অ্যানিমেশন,রোবটিক্সসহ আধুনিক প্রযুক্তির সঙ্গে পরিচিত হবে।এর মাধ্যমে প্রগতিশীল সমাজ গঠন ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের সন্ত্মানদের ভালো কাজে অনুপ্রাণিত করা সম্ভব।
রাজশাহীর প্রতিটি স্কুলেই এমন ল্যাব প্রয়োজন উলেস্নখ করে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির এই সদস্য বলেন, এ শহর শিক্ষা নগরী।এখানে একটি স্কুল দিয়ে এই যাত্রা শুরম্ন করা হলো।শহরের প্রতিটি স্কুলেই যেন এই ল্যাব হয়- সে বিষয়ে আমার সর্বাত্মক প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।
অনুষ্ঠানে রাজশাহী কোর্ট অ্যাকাডেমির গভর্নিং বডির সভাপতি রফিকুজ্জামান বেল্টু, মহানগর ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামানিক দেবু,৭ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মতিউর রহমান মতি, স্কুলের প্রধান শিক্ষক শফিকুল ইসলামসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।