ঢাকা ০৯:১৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

মেসি নেইমার এমবাপে ও হাকিমিকে নিয়েও হারল পিএসজি

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:৩৬:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২৩
  • / ৪৪৪ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

স্পোর্টস ডেস্ক : 

লিগ ওয়ান চ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে দিল রেন। শেষ কয়েক ম্যাচে ব্যর্থতার বৃত্তে ঘুরপাক খাওয়া পিএসজি রোববার (১৫ জানুয়ারি) রাতে লিগ ওয়ানে রেনের কাছে হেরেছে ০-১ গোলে। চলমান লিগে সবশেষ তিন ম্যাচের দুটিতেই হারল ক্রিস্তফ গালতিয়ের দল। একইসঙ্গে রেনের মাঠে লিগে এই নিয়ে সবশেষ চার ম্যাচের তিনটিতে হারের তিক্ত স্বাদ পেল প্যারিসের দলটি, অন্যটি হয়েছিল ড্র।

লিওনেল মেসি ও নেইমারকে শুরুর একাদশে রাখলেও ছুটি কাটিয়ে ফেরা কিলিয়ান এমবাপেকে বেঞ্চে রাখেন পিএসজি কোচ। বিরতির পর মাঠে নেমে দলকে ম্যাচে ফেরানোর সুবর্ণ সুযোগ হারান ফরাসি তারকা।

এদিকে খেলতে নেমে ২০তম মিনিটে গোলের জন্য প্রথম শট নেয় পিএসজি। বক্সের সামনে থেকে মেসির বাঁ পায়ের সেই শট ক্রসবারের ওপর দিয়ে উড়ে যায়। ২৮তম মিনিটে দোন্নারুম্মার দৃঢ়তায় বেঁচে যায় সফরকারীরা। কাছ থেকে কালিমুন্দোর জোরাল ভলি ফিরিয়ে দেন এই ইতালিয়ান গোলরক্ষক। ৩৮তম মিনিটে প্রায় ২০ গজ দূর থেকে লভরো মাইয়ের শটও ঝাঁপিয়ে ঠেকান তিনি। বিরতির আগে ভালো একটি সুযোগ তৈরি করে পিএসজি। বক্সের ভেতর মেসির প্রচেষ্টা প্রতিহত হয় রক্ষণে। প্রথমার্ধে স্বাগতিক গোলরক্ষকের কোনো পরীক্ষা তারা নিতে পারেনি।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে দানিলো পেরেইরার জোরাল হেড ফিরিয়ে দেন রেনের গোলরক্ষক। যদিও গোল মিলত না, অফসাইডের পতাকা তোলেন লাইন্সম্যান। ৫৬তম মিনিটে জোড়া পরিবর্তন আনেন গালতিয়ে। উগো একিতিকে ও নর্দি মুকিয়েলের জায়গায় নামান এমবাপে ও আশরাফ হাকিমিকে। দুই মিনিট পর আরেকবার পিএসজির ত্রাতা দোন্নারুম্মা। মাইয়ের ফ্রি-কিক ঝাঁপিয়ে ঠেকান তিনি। ৬৫তম মিনিটে তিনি আর পারেননি। বাঁ দিকের বাইলাইনের কাছাকাছি থেকে সতীর্থের কাট-ব্যাকে বাঁ পায়ের শটে রেনকে এগিয়ে নেন হামারি ত্রাওরে। ৯০ মিনিট শেষে আর কোনো গোল হয়নি। এতে ১-০ গোলে জয় মাঠ ছাড়ে স্বাগতিকরা।

পুরো ম্যাচে গোলের জন্য পিএসজির সমান ৮টি শট নিয়ে ৬টিই লক্ষ্যে রাখে রেন। এই পরিসংখ্যানেই ফুটে উঠেছে দুই দলের ম্যাচের তফাৎ।

১৯ ম্যাচে ৪৭ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে পিএসজি। সমান ম্যাচে ৪৪ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে লঁস। তাদের চেয়ে ২ পয়েন্ট কম নিয়ে তিনে মার্সেই। সমান ৩৭ পয়েন্ট নিয়ে মোনাকো চারে ও রেন পাঁচ নম্বরে আছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

মেসি নেইমার এমবাপে ও হাকিমিকে নিয়েও হারল পিএসজি

আপডেট সময় : ১২:৩৬:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২৩

স্পোর্টস ডেস্ক : 

লিগ ওয়ান চ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে দিল রেন। শেষ কয়েক ম্যাচে ব্যর্থতার বৃত্তে ঘুরপাক খাওয়া পিএসজি রোববার (১৫ জানুয়ারি) রাতে লিগ ওয়ানে রেনের কাছে হেরেছে ০-১ গোলে। চলমান লিগে সবশেষ তিন ম্যাচের দুটিতেই হারল ক্রিস্তফ গালতিয়ের দল। একইসঙ্গে রেনের মাঠে লিগে এই নিয়ে সবশেষ চার ম্যাচের তিনটিতে হারের তিক্ত স্বাদ পেল প্যারিসের দলটি, অন্যটি হয়েছিল ড্র।

লিওনেল মেসি ও নেইমারকে শুরুর একাদশে রাখলেও ছুটি কাটিয়ে ফেরা কিলিয়ান এমবাপেকে বেঞ্চে রাখেন পিএসজি কোচ। বিরতির পর মাঠে নেমে দলকে ম্যাচে ফেরানোর সুবর্ণ সুযোগ হারান ফরাসি তারকা।

এদিকে খেলতে নেমে ২০তম মিনিটে গোলের জন্য প্রথম শট নেয় পিএসজি। বক্সের সামনে থেকে মেসির বাঁ পায়ের সেই শট ক্রসবারের ওপর দিয়ে উড়ে যায়। ২৮তম মিনিটে দোন্নারুম্মার দৃঢ়তায় বেঁচে যায় সফরকারীরা। কাছ থেকে কালিমুন্দোর জোরাল ভলি ফিরিয়ে দেন এই ইতালিয়ান গোলরক্ষক। ৩৮তম মিনিটে প্রায় ২০ গজ দূর থেকে লভরো মাইয়ের শটও ঝাঁপিয়ে ঠেকান তিনি। বিরতির আগে ভালো একটি সুযোগ তৈরি করে পিএসজি। বক্সের ভেতর মেসির প্রচেষ্টা প্রতিহত হয় রক্ষণে। প্রথমার্ধে স্বাগতিক গোলরক্ষকের কোনো পরীক্ষা তারা নিতে পারেনি।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে দানিলো পেরেইরার জোরাল হেড ফিরিয়ে দেন রেনের গোলরক্ষক। যদিও গোল মিলত না, অফসাইডের পতাকা তোলেন লাইন্সম্যান। ৫৬তম মিনিটে জোড়া পরিবর্তন আনেন গালতিয়ে। উগো একিতিকে ও নর্দি মুকিয়েলের জায়গায় নামান এমবাপে ও আশরাফ হাকিমিকে। দুই মিনিট পর আরেকবার পিএসজির ত্রাতা দোন্নারুম্মা। মাইয়ের ফ্রি-কিক ঝাঁপিয়ে ঠেকান তিনি। ৬৫তম মিনিটে তিনি আর পারেননি। বাঁ দিকের বাইলাইনের কাছাকাছি থেকে সতীর্থের কাট-ব্যাকে বাঁ পায়ের শটে রেনকে এগিয়ে নেন হামারি ত্রাওরে। ৯০ মিনিট শেষে আর কোনো গোল হয়নি। এতে ১-০ গোলে জয় মাঠ ছাড়ে স্বাগতিকরা।

পুরো ম্যাচে গোলের জন্য পিএসজির সমান ৮টি শট নিয়ে ৬টিই লক্ষ্যে রাখে রেন। এই পরিসংখ্যানেই ফুটে উঠেছে দুই দলের ম্যাচের তফাৎ।

১৯ ম্যাচে ৪৭ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে পিএসজি। সমান ম্যাচে ৪৪ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে লঁস। তাদের চেয়ে ২ পয়েন্ট কম নিয়ে তিনে মার্সেই। সমান ৩৭ পয়েন্ট নিয়ে মোনাকো চারে ও রেন পাঁচ নম্বরে আছে।