ঢাকা ০৬:২৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

মাদারগঞ্জে ব্র্যাকের অ্যাডভোকেসি কর্মশালা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৬:২০:০৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ এপ্রিল ২০২৩
  • / ৪৭১ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মাদারগঞ্জ ( জামালপুর) প্রতিনিধি :

জামালপুরের মাদারগঞ্জ উপজেলায় ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের উদ্যোগে KFW এবং Climate Bridge Fund (CBF) এর আর্থিক সহযোগিতায় “নিরাপদ অভিবাসন ও বিদেশ-ফেরতদের পুনরেকত্রীকরণ” বিষয়ক উপজেলা অ্যাডভোকেসি কর্মশালা ১১ এপ্রিল সকাল ১০টায় উপজেলা পরিষদ হলরুমে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

কর্মশালায় উপজেলা নিবার্হী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ইলিশায় রিছিলের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ ওবায়দুর রহমান বেলাল। কর্মশালায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপনা করেন ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রারে জামালপুর ডিস্ট্রিক্ট কো-অর্ডিনেটর মোঃ আরিফুল ইসলাম। তিনি ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের সেবা প্রদান, বিদেশ ফেরত ও গমনে ইচ্ছুকদের বিভিন্ন সমস্যা ও তার সমাধান এবং জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব কিভাবে মোকাবেলা করা যায় সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ ওবায়দুর রহমান বেলাল বলেন, আমি নিজে প্রায় ৮০০০ অভিযোগের নিষ্পত্তি করেছি। তন্মধ্যে ২০০০ ছিল অভিবাসন সংক্রান্ত। কিন্তু দুঃখজনক হলো এর ২০% সমাধানও সুষ্ঠুভাবে নিষ্পত্তি করা সম্ভব হয়নি। এর প্রধান কারণ হলো বিদেশ যাওয়ার আগে সঠিকভাবে তথ্য যাচাই-বাছাই না করা। অথচ সরকার উপজেলা পর্যায়ে একটি করে টিটিসি স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহন করেন। মাদারগঞ্জের টিটিসির জন্য ইতোমধ্যে জমি অধিগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। তাই অবশ্যই দক্ষ হয়ে সবকিছু বুঝে শুনে বিদেশ যাওয়া দরকার। কেননা রেমিটেন্স আমাদের দেশে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছে।

তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশের ৬৪ জেলায় ১০০টি ইকোনোমিক জোন স্থাপনের মাধ্যমে শিল্পবিপ্লব ঘটতে যাচ্ছে। যেখানে অনেক দক্ষ জনবল প্রয়োজন হবে। আমাদের জনবল যদি দক্ষ না হয়, তাহলে এসব ইকোনোমিক জোনের শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলো চালু হলে বিদেশ থেকে দক্ষ জনবল হায়ার করতে হবে। এরকম কর্মশালার পাশাপাশি ধর্মীয় উপাসনালয় ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে লিফলেট বিতরণের মাধ্যমে প্রচারনা করলে একই সময়ে অনেক বেশি মানুষকে সচেতন করা যাবে। এই সচেতনতার বার্তাগুলো নিজ নিজ অবস্থান থেকে ছড়িয়ে দিবেন এই প্রত্যাশা রেখে ও ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের সাফল্য কামনা করার পাশাপাশি তাদের কর্মকান্ডকে সহযোগীতা করার আহবান জানিয়ে শেষ করেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ইলিশায় রিছিল সভাপতির বক্তব্যে বলেন, প্রতিটি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রবাসী কল্যাণ শাখা রয়েছে। যেখানে বিশেষভাবে প্রবাসীদের কল্যাণে কাজ করা হয়, যেটা অনেকের অজানা। দুঃখজনক হলেও সত্য যে প্রবাসীদের প্রেরিত রেমিটেন্স অধিকাংশ ক্ষেত্রে মৌলিক চাহিদায় ব্যয় না হয়ে ভোগ বিলাসিতায় ব্যয় হচ্ছে। প্রবাসীদের উপার্জিত অর্থগুলোর উৎপাদনশীল খাতে ব্যয় করার জন্য গুরুত্বারোপ করেন।

জামালপুর ব্র্যাক ডিস্ট্রিক্ট কো-অর্ডিনেটর মোঃ মনির হোসেনের সঞ্চালনায় এই কর্মশালাটিতে আরো উপস্থিত থেকে বক্তব্য প্রদান করেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ হুমায়ুন কবির, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সমসাদ আরা বেগম, চরপাকেরদহ চেয়ারম্যান বদরুল আলম সরদার, গুনারীতলা চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান, মাদারগঞ্জ মডেল থানার এস.আই ফারুক আহমেদ, উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মোঃ তৌফিকুল ইসলাম খালেক, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা শায়লা নাজনীন, উপজেলা দারিদ্র বিমোচন কর্মকর্তা মোঃ ওয়ালীউল্লাহ, পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক এ টি এম মোকাব্বের রহমান, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা, শাহ জামাল, মাদারগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মোঃ জুলফিকার আলী বাবলু।

এছাড়াও উপজেলা পর্যায়ের বিভিন্ন দপ্তরের সরকারি কর্মকর্তাবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি, বেসরকারি সংস্থার প্রতিনিধি, শিক্ষকমন্ডলী এবং সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, সাংবাদিক, বিদেশ ফেরত অভিবাসী এবং ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের অন্যান্য প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

এরপর মুক্ত আলোচনায় বিদেশ ফেরত তিনজন অভিবাসীর বিদেশে অবস্থানকালীন ও ফেরত পরবর্তী করুন কাহিনী/অভিজ্ঞতা তুলে ধরে তাদের জীবনের উন্নতির জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

বা/খ: জই

নিউজটি শেয়ার করুন

মাদারগঞ্জে ব্র্যাকের অ্যাডভোকেসি কর্মশালা

আপডেট সময় : ০৬:২০:০৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ এপ্রিল ২০২৩

মাদারগঞ্জ ( জামালপুর) প্রতিনিধি :

জামালপুরের মাদারগঞ্জ উপজেলায় ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের উদ্যোগে KFW এবং Climate Bridge Fund (CBF) এর আর্থিক সহযোগিতায় “নিরাপদ অভিবাসন ও বিদেশ-ফেরতদের পুনরেকত্রীকরণ” বিষয়ক উপজেলা অ্যাডভোকেসি কর্মশালা ১১ এপ্রিল সকাল ১০টায় উপজেলা পরিষদ হলরুমে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

কর্মশালায় উপজেলা নিবার্হী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ইলিশায় রিছিলের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ ওবায়দুর রহমান বেলাল। কর্মশালায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপনা করেন ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রারে জামালপুর ডিস্ট্রিক্ট কো-অর্ডিনেটর মোঃ আরিফুল ইসলাম। তিনি ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের সেবা প্রদান, বিদেশ ফেরত ও গমনে ইচ্ছুকদের বিভিন্ন সমস্যা ও তার সমাধান এবং জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব কিভাবে মোকাবেলা করা যায় সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ ওবায়দুর রহমান বেলাল বলেন, আমি নিজে প্রায় ৮০০০ অভিযোগের নিষ্পত্তি করেছি। তন্মধ্যে ২০০০ ছিল অভিবাসন সংক্রান্ত। কিন্তু দুঃখজনক হলো এর ২০% সমাধানও সুষ্ঠুভাবে নিষ্পত্তি করা সম্ভব হয়নি। এর প্রধান কারণ হলো বিদেশ যাওয়ার আগে সঠিকভাবে তথ্য যাচাই-বাছাই না করা। অথচ সরকার উপজেলা পর্যায়ে একটি করে টিটিসি স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহন করেন। মাদারগঞ্জের টিটিসির জন্য ইতোমধ্যে জমি অধিগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। তাই অবশ্যই দক্ষ হয়ে সবকিছু বুঝে শুনে বিদেশ যাওয়া দরকার। কেননা রেমিটেন্স আমাদের দেশে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছে।

তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশের ৬৪ জেলায় ১০০টি ইকোনোমিক জোন স্থাপনের মাধ্যমে শিল্পবিপ্লব ঘটতে যাচ্ছে। যেখানে অনেক দক্ষ জনবল প্রয়োজন হবে। আমাদের জনবল যদি দক্ষ না হয়, তাহলে এসব ইকোনোমিক জোনের শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলো চালু হলে বিদেশ থেকে দক্ষ জনবল হায়ার করতে হবে। এরকম কর্মশালার পাশাপাশি ধর্মীয় উপাসনালয় ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে লিফলেট বিতরণের মাধ্যমে প্রচারনা করলে একই সময়ে অনেক বেশি মানুষকে সচেতন করা যাবে। এই সচেতনতার বার্তাগুলো নিজ নিজ অবস্থান থেকে ছড়িয়ে দিবেন এই প্রত্যাশা রেখে ও ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের সাফল্য কামনা করার পাশাপাশি তাদের কর্মকান্ডকে সহযোগীতা করার আহবান জানিয়ে শেষ করেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ইলিশায় রিছিল সভাপতির বক্তব্যে বলেন, প্রতিটি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রবাসী কল্যাণ শাখা রয়েছে। যেখানে বিশেষভাবে প্রবাসীদের কল্যাণে কাজ করা হয়, যেটা অনেকের অজানা। দুঃখজনক হলেও সত্য যে প্রবাসীদের প্রেরিত রেমিটেন্স অধিকাংশ ক্ষেত্রে মৌলিক চাহিদায় ব্যয় না হয়ে ভোগ বিলাসিতায় ব্যয় হচ্ছে। প্রবাসীদের উপার্জিত অর্থগুলোর উৎপাদনশীল খাতে ব্যয় করার জন্য গুরুত্বারোপ করেন।

জামালপুর ব্র্যাক ডিস্ট্রিক্ট কো-অর্ডিনেটর মোঃ মনির হোসেনের সঞ্চালনায় এই কর্মশালাটিতে আরো উপস্থিত থেকে বক্তব্য প্রদান করেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ হুমায়ুন কবির, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সমসাদ আরা বেগম, চরপাকেরদহ চেয়ারম্যান বদরুল আলম সরদার, গুনারীতলা চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান, মাদারগঞ্জ মডেল থানার এস.আই ফারুক আহমেদ, উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মোঃ তৌফিকুল ইসলাম খালেক, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা শায়লা নাজনীন, উপজেলা দারিদ্র বিমোচন কর্মকর্তা মোঃ ওয়ালীউল্লাহ, পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক এ টি এম মোকাব্বের রহমান, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা, শাহ জামাল, মাদারগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মোঃ জুলফিকার আলী বাবলু।

এছাড়াও উপজেলা পর্যায়ের বিভিন্ন দপ্তরের সরকারি কর্মকর্তাবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি, বেসরকারি সংস্থার প্রতিনিধি, শিক্ষকমন্ডলী এবং সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, সাংবাদিক, বিদেশ ফেরত অভিবাসী এবং ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের অন্যান্য প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

এরপর মুক্ত আলোচনায় বিদেশ ফেরত তিনজন অভিবাসীর বিদেশে অবস্থানকালীন ও ফেরত পরবর্তী করুন কাহিনী/অভিজ্ঞতা তুলে ধরে তাদের জীবনের উন্নতির জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

বা/খ: জই