ঢাকা ০৩:৩১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

বেইলি রোডের আগুনে দুই সাংবাদিকের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০১:৪৪:২১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ মার্চ ২০২৪
  • / ৫১১ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

রাজধানীর বেইলি রোডে বহুতল ভবনে আগুনের ঘটনায় মারা গেছেন অনলাইন পত্রিকা দ্য রিপোর্টের সাবেক সাংবাদিক অভিশ্রুতি শাস্ত্রী। একই ঘটনায় তুষার হাওলাদার নামের দ্য রিপোর্টের আরও এক সাংবাদিক মারা গেছেন।

বর্তমানে মরদেহ শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের হিমঘরে রাখা হয়েছে। এর আগে, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার ফিঙ্গারপ্রিন্ট সংরক্ষণ করা হয়। শুক্রবার (১ মার্চ) দ্য রিপোর্ট.লাইভের চিফ রিপোর্টার গোলাম রব্বানী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, গত জানুয়ারিতে চাকরি ছেড়েছিলেন অভিশ্রুতি। তুষার হাওলাদারের সঙ্গে আরেকজন ছিলেন, যাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। তখন জানতে পারি অভিশ্রুতিকেও পাওয়া যাচ্ছে না। তখন খুঁজতে এসে তাকে শনাক্ত করি। পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, অভিশ্রুতির এনআইডি নেই। তবে জন্ম সনদ আছে। ছয় মাস আমাদের সঙ্গে চাকরি করেছে। গত জানুয়ারিতে তিনি চাকরি ছেড়েছেন।

জানা গেছে, অভিশ্রুতি নির্বাচন কমিশন বিটে কাজ করতেন। তার বাড়ি কুষ্টিয়ায়। তিনি ইডেন মহিলা কলেজে সদ্য স্নাতক পরীক্ষা দিয়েছেন। ঢাকার মৌচাকের সিআইডি অফিসের বিপরীতে একটি মেসে থাকতেন তিনি।

এদিকে, আগুনের ঘটনায় মারা গেছেন ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সদ্য স্নাতক পাশ করা তুষার হালদার নামে এক শিক্ষার্থী।

জানা গেছে, তিনি স্টার টেক নামে একটি আইটি কোম্পানিতে ভিডিও জার্নালিস্ট হিসেবে কর্মরত ছিলেন। এর আগে দ্যা রিপোর্ট ডট লাইভে মাল্টিমিডিয়ায় কাজ করতেন।

শুক্রবার (১ মার্চ) ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে লাশ গ্রহণ করতে এসে সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান বাবা দীনেশ হাওলাদার।

তিনি জানান, তুষার ড্যাফোডিল থেকে সাংবাদিকতা বিভাগে অনার্স পাস করেছে। গতকাল বাংলামোটরের অফিস থেকে বের হয়ে বেইলি রোডে খাবার খেতে যায় বন্ধুদের সঙ্গে। আর সেখানেই অগ্নিদুর্ঘটনার শিকার হয়ে প্রাণ হারায়।

জানা গেছে, তুষার হাওলাদারের বাড়ি ঝালকাঠি জেলায়। তিনি ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি থেকে স্নাতক সম্পন্ন করেছেন এবং সমাবর্তনের অপেক্ষায় ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

বেইলি রোডের আগুনে দুই সাংবাদিকের মৃত্যু

আপডেট সময় : ০১:৪৪:২১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ মার্চ ২০২৪

রাজধানীর বেইলি রোডে বহুতল ভবনে আগুনের ঘটনায় মারা গেছেন অনলাইন পত্রিকা দ্য রিপোর্টের সাবেক সাংবাদিক অভিশ্রুতি শাস্ত্রী। একই ঘটনায় তুষার হাওলাদার নামের দ্য রিপোর্টের আরও এক সাংবাদিক মারা গেছেন।

বর্তমানে মরদেহ শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের হিমঘরে রাখা হয়েছে। এর আগে, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার ফিঙ্গারপ্রিন্ট সংরক্ষণ করা হয়। শুক্রবার (১ মার্চ) দ্য রিপোর্ট.লাইভের চিফ রিপোর্টার গোলাম রব্বানী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, গত জানুয়ারিতে চাকরি ছেড়েছিলেন অভিশ্রুতি। তুষার হাওলাদারের সঙ্গে আরেকজন ছিলেন, যাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। তখন জানতে পারি অভিশ্রুতিকেও পাওয়া যাচ্ছে না। তখন খুঁজতে এসে তাকে শনাক্ত করি। পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, অভিশ্রুতির এনআইডি নেই। তবে জন্ম সনদ আছে। ছয় মাস আমাদের সঙ্গে চাকরি করেছে। গত জানুয়ারিতে তিনি চাকরি ছেড়েছেন।

জানা গেছে, অভিশ্রুতি নির্বাচন কমিশন বিটে কাজ করতেন। তার বাড়ি কুষ্টিয়ায়। তিনি ইডেন মহিলা কলেজে সদ্য স্নাতক পরীক্ষা দিয়েছেন। ঢাকার মৌচাকের সিআইডি অফিসের বিপরীতে একটি মেসে থাকতেন তিনি।

এদিকে, আগুনের ঘটনায় মারা গেছেন ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সদ্য স্নাতক পাশ করা তুষার হালদার নামে এক শিক্ষার্থী।

জানা গেছে, তিনি স্টার টেক নামে একটি আইটি কোম্পানিতে ভিডিও জার্নালিস্ট হিসেবে কর্মরত ছিলেন। এর আগে দ্যা রিপোর্ট ডট লাইভে মাল্টিমিডিয়ায় কাজ করতেন।

শুক্রবার (১ মার্চ) ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে লাশ গ্রহণ করতে এসে সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান বাবা দীনেশ হাওলাদার।

তিনি জানান, তুষার ড্যাফোডিল থেকে সাংবাদিকতা বিভাগে অনার্স পাস করেছে। গতকাল বাংলামোটরের অফিস থেকে বের হয়ে বেইলি রোডে খাবার খেতে যায় বন্ধুদের সঙ্গে। আর সেখানেই অগ্নিদুর্ঘটনার শিকার হয়ে প্রাণ হারায়।

জানা গেছে, তুষার হাওলাদারের বাড়ি ঝালকাঠি জেলায়। তিনি ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি থেকে স্নাতক সম্পন্ন করেছেন এবং সমাবর্তনের অপেক্ষায় ছিলেন।