ঢাকা ০৭:১৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

পাইকগাছা চাঁদখালী ২০ হাজার মানুষের জন্য কবরস্থান নির্মাণের জোরালো দাবি এলাকাবাসীর

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৪:৫৭:১৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪
  • / ৪৭১ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
খুলনার পাইকগাছার চাঁদখালী ইউনিয়নের ৪, ৫ও ৬ নং ওয়ার্ডের প্রায় ২০ হাজার মানুষের সরকারী কোন কবরস্থান না থাকায় ভোগান্তিতে রয়েছে স্থানীয়রা। আর ৫ নং ওয়ার্ডের গুচ্ছ গ্রামে বসবাস করছে আরো ২২৬টি পরিবার।
ওই এলাকায় স্থানীয়দের জন্য পারিবারিক কবরস্থান থাকলেও সাধারণ মানুষ ও গুচ্ছ গ্রামের বাসিন্দাদের শেষ যাত্রার ঠিকানা হিসেবে সরকারি কোনো কবরস্থান নেই। ফলে ভোগান্তির শিকার হতে হচ্ছে শোকাহত স্বজনদের।আর আগামীতে সাধারণ মানুষ ও গুচ্ছ গ্রামের বাসিন্দাদের সমাহিত করতে সংকট দেখা দেওয়ার আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা। ওই ওয়ার্ডের সীমান্ত এলাকায় কপোতাক্ষ নদীর পলি জমে জেগে উঠেছে বিশাল একটি চর। তাই ওই জায়গায় দ্রুত সরকারিভাবে উদ্যোগ নিয়ে সাধারণ মানুষের জন্য পৃথক একটি কবরস্থান নির্মাণের দাবি করেন এলাকাবাসী।
রবিবার বিকাল ৩টায় এলাকাবাসি ও গুচ্ছ গ্রামের বাসিন্দারা স্ব-শরীরে ওই জায়গায় উপস্হিত হয়ে কবরস্থানের দাবি তোলেন। ৩০ বছরের অধিক সময় ধরে গুচ্ছ গ্রামে বসবাসকারি মুজিবুর রহমান ও আকিল উদ্দীন সহ একাধিক ব্যক্তি জানান, এখানে কোন সরকারি কবরস্থান নেই। একটি সরকারি কবরস্থানের খুব জরুরি প্রয়োজন। তাই একটি কবরস্থানের জন্য সরকারের কাছে দাবি জানাই।
স্হানীয় বকতিয়ার রহমান গাজী, আলাম গাজী, রফিকুল ইসলাম গাজী, বেলাল হোসেন, মনু গাজী ও আসাদুল গাজীসহ একাধিক এলাকাবাসি জানান, এখানে ২টি গুচ্ছ গ্রামে মোট ২২৬টি পরিবারসহ একালাবাসির জন্য কোন কবরস্থান নেই। একটি কবরস্থানের খুব প্রয়োজন। তাই এখানে একটি কবরস্থান নির্মানের জন্য সরকারের কাছে জোর দাবি করছি।
এদিকে কাওয়ালী মৌজায় মৌজায় বিআরএস ২৪৪ দাগে ১০৮,৪০৬ ও ৪০৭ দাগে ৩ একর খাস জমি রয়েছে। তাই ওয়ার্ডবাসীদের দীর্ঘদিনের ভোগান্তির কথা চিন্তা করে ওই খাস জমিতে একটি স্থায়ী করবস্থান নির্মানের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে জোরালো দাবী জানান তারা।
এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান শাহজাদা মোঃ আবু ইলিয়াস বলেন, চাঁদখালী ইউনিয়নের ৩ টি ওয়ার্ডের এলাকাবাসি সহ দুটি গুচ্ছ গ্রামের বসবাসকারি ২২৬টি পরিবারের বাসিন্দাদের জন্য কোন কবরস্থান নেই। তাদের একটি সরকারি কবরস্থান প্রয়োজন। এটি হলে অনেক ভালো হবে। সাধারন মানুষের শেষ যাত্রার একটি স্থায়ী ঠিকানা হবে। তাদের দীর্ঘদিনের ভোগান্তি লাঘবে সরকারি ভাবে একটি কবরস্থান নির্মানের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবী জানাচ্ছি।
বাখ//আর

নিউজটি শেয়ার করুন

পাইকগাছা চাঁদখালী ২০ হাজার মানুষের জন্য কবরস্থান নির্মাণের জোরালো দাবি এলাকাবাসীর

আপডেট সময় : ০৪:৫৭:১৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪
খুলনার পাইকগাছার চাঁদখালী ইউনিয়নের ৪, ৫ও ৬ নং ওয়ার্ডের প্রায় ২০ হাজার মানুষের সরকারী কোন কবরস্থান না থাকায় ভোগান্তিতে রয়েছে স্থানীয়রা। আর ৫ নং ওয়ার্ডের গুচ্ছ গ্রামে বসবাস করছে আরো ২২৬টি পরিবার।
ওই এলাকায় স্থানীয়দের জন্য পারিবারিক কবরস্থান থাকলেও সাধারণ মানুষ ও গুচ্ছ গ্রামের বাসিন্দাদের শেষ যাত্রার ঠিকানা হিসেবে সরকারি কোনো কবরস্থান নেই। ফলে ভোগান্তির শিকার হতে হচ্ছে শোকাহত স্বজনদের।আর আগামীতে সাধারণ মানুষ ও গুচ্ছ গ্রামের বাসিন্দাদের সমাহিত করতে সংকট দেখা দেওয়ার আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা। ওই ওয়ার্ডের সীমান্ত এলাকায় কপোতাক্ষ নদীর পলি জমে জেগে উঠেছে বিশাল একটি চর। তাই ওই জায়গায় দ্রুত সরকারিভাবে উদ্যোগ নিয়ে সাধারণ মানুষের জন্য পৃথক একটি কবরস্থান নির্মাণের দাবি করেন এলাকাবাসী।
রবিবার বিকাল ৩টায় এলাকাবাসি ও গুচ্ছ গ্রামের বাসিন্দারা স্ব-শরীরে ওই জায়গায় উপস্হিত হয়ে কবরস্থানের দাবি তোলেন। ৩০ বছরের অধিক সময় ধরে গুচ্ছ গ্রামে বসবাসকারি মুজিবুর রহমান ও আকিল উদ্দীন সহ একাধিক ব্যক্তি জানান, এখানে কোন সরকারি কবরস্থান নেই। একটি সরকারি কবরস্থানের খুব জরুরি প্রয়োজন। তাই একটি কবরস্থানের জন্য সরকারের কাছে দাবি জানাই।
স্হানীয় বকতিয়ার রহমান গাজী, আলাম গাজী, রফিকুল ইসলাম গাজী, বেলাল হোসেন, মনু গাজী ও আসাদুল গাজীসহ একাধিক এলাকাবাসি জানান, এখানে ২টি গুচ্ছ গ্রামে মোট ২২৬টি পরিবারসহ একালাবাসির জন্য কোন কবরস্থান নেই। একটি কবরস্থানের খুব প্রয়োজন। তাই এখানে একটি কবরস্থান নির্মানের জন্য সরকারের কাছে জোর দাবি করছি।
এদিকে কাওয়ালী মৌজায় মৌজায় বিআরএস ২৪৪ দাগে ১০৮,৪০৬ ও ৪০৭ দাগে ৩ একর খাস জমি রয়েছে। তাই ওয়ার্ডবাসীদের দীর্ঘদিনের ভোগান্তির কথা চিন্তা করে ওই খাস জমিতে একটি স্থায়ী করবস্থান নির্মানের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে জোরালো দাবী জানান তারা।
এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান শাহজাদা মোঃ আবু ইলিয়াস বলেন, চাঁদখালী ইউনিয়নের ৩ টি ওয়ার্ডের এলাকাবাসি সহ দুটি গুচ্ছ গ্রামের বসবাসকারি ২২৬টি পরিবারের বাসিন্দাদের জন্য কোন কবরস্থান নেই। তাদের একটি সরকারি কবরস্থান প্রয়োজন। এটি হলে অনেক ভালো হবে। সাধারন মানুষের শেষ যাত্রার একটি স্থায়ী ঠিকানা হবে। তাদের দীর্ঘদিনের ভোগান্তি লাঘবে সরকারি ভাবে একটি কবরস্থান নির্মানের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবী জানাচ্ছি।
বাখ//আর