ঢাকা ০১:১১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

নেতানিয়াহুর পদত্যাগ দাবি, রাস্তায় হাজারো জনতা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৯:৫৬:৩৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ মার্চ ২০২৪
  • / ৪৪১ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর পদত্যাগ দাবিতে রাস্তায় নামল হাজারো ইসরায়েলি। শনিবার রাতে তেল আবিব, জেরুজালেম, হাইফা, বের শেভা, সিজারিয়া ও অন্যান্য শহরে প্রতিবাদ করেন তারা। এ সময় এতে পুলিশ বাধা দেয়। আটক করা হয় বেশ কয়েকজনকে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান বলছে, শনিবার ইসরায়েলের বিভিন্ন শহরে প্রতিবাদে নামেন হামাসের হাতে জিম্মি হওয়া ইসরায়েলিদের পরিবারের সদস্যরা। এ সময় তাদের সঙ্গে যোগ দেন হাজারো জনতা। তাদের হাতে ছিল নেতানিয়াহু বিরোধী প্ল্যাকার্ড। জিম্মিদের মুক্তিতে বড় বাধা হিসেবে নেতানিয়াহুর নাম উল্লেখ করেন তারা।

এমন এক সময়ে এই প্রতিবাদ শুরু হলো, যখন কায়রোতে হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যে যুদ্ধবিরতি আলোচনা শুরু হওয়ার কথা। আগেও নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে প্রতিবাদে রাস্তায় নামতে দেখা যায় ইসরায়েলিদের।

এবারের প্রতিবাদ থামাতে জলকামান ব্যবহার করেছে পুলিশ। এ সময় ১৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ব্যাপারে ইসরায়েল সরকারের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

এদিকে ইসরায়েলি হামলায় গাজার বাসিন্দাদের পাশাপাশি বিভিন্ন সহায়তা সংস্থার সদস্যরাও হতাহত হচ্ছেন। ত্রাণ সহায়তা বা চিকিৎসা সেবা দিতে গিয়েও প্রাণ হারাচ্ছেন অনেকে। ফিলিস্তিন রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি (পিআরসিএস) জানিয়েছে, সংস্থাটির ২৬ সদস্য নিহত হয়েছেন ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায়। আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়।

পিআরসিএস জানায়, গাজায় সংঘাত শুরুর পর থেকে এখন পর্যন্ত তাদের ২৬ সদস্য নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে প্রায় ১৫ জন কর্মী দায়িত্ব পালনের সময় ইসরায়েলি হামলায় নিহত হয়েছেন। এমনকি তাঁরা রেড ক্রিসেন্টের পোশাক পরা ছিলেন। তারপরও তাদের ওপর হামলা চালানো হয়েছে।

এদিকে গাজার আল–শিফা হাসপাতালে ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় চার শতাধিক ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। গাজার মিডিয়া অফিস জানিয়েছে, ১৩ দিন ধরে হাসপাতালে অভিযান চালাচ্ছে ইসরায়েলি সেনারা। এতে রোগী, বাস্তুচ্যুত মানুষ, মেডিকেল কর্মীসহ চার শতাধিক মানুষ নিহত হয়েছে।

গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলে আকস্মিক হামলা চালায় ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস। এর জেরে গাজায় অভিযান শুরু করে ইসরায়েল। গত পাঁচ মাসের বেশি সময় ধরে গাজায় হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েলি বাহিনী। এখন পর্যন্ত ইসরায়েলি হামলায় ৩২ হাজার ৭০০ জনের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছে ৭৫ হাজারের বেশি মানুষ। আর বাস্তুচ্যূত ২৩ লাখ গাজাবাসীর প্রায় সবাই।

নিউজটি শেয়ার করুন

নেতানিয়াহুর পদত্যাগ দাবি, রাস্তায় হাজারো জনতা

আপডেট সময় : ০৯:৫৬:৩৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ মার্চ ২০২৪

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর পদত্যাগ দাবিতে রাস্তায় নামল হাজারো ইসরায়েলি। শনিবার রাতে তেল আবিব, জেরুজালেম, হাইফা, বের শেভা, সিজারিয়া ও অন্যান্য শহরে প্রতিবাদ করেন তারা। এ সময় এতে পুলিশ বাধা দেয়। আটক করা হয় বেশ কয়েকজনকে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান বলছে, শনিবার ইসরায়েলের বিভিন্ন শহরে প্রতিবাদে নামেন হামাসের হাতে জিম্মি হওয়া ইসরায়েলিদের পরিবারের সদস্যরা। এ সময় তাদের সঙ্গে যোগ দেন হাজারো জনতা। তাদের হাতে ছিল নেতানিয়াহু বিরোধী প্ল্যাকার্ড। জিম্মিদের মুক্তিতে বড় বাধা হিসেবে নেতানিয়াহুর নাম উল্লেখ করেন তারা।

এমন এক সময়ে এই প্রতিবাদ শুরু হলো, যখন কায়রোতে হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যে যুদ্ধবিরতি আলোচনা শুরু হওয়ার কথা। আগেও নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে প্রতিবাদে রাস্তায় নামতে দেখা যায় ইসরায়েলিদের।

এবারের প্রতিবাদ থামাতে জলকামান ব্যবহার করেছে পুলিশ। এ সময় ১৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ব্যাপারে ইসরায়েল সরকারের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

এদিকে ইসরায়েলি হামলায় গাজার বাসিন্দাদের পাশাপাশি বিভিন্ন সহায়তা সংস্থার সদস্যরাও হতাহত হচ্ছেন। ত্রাণ সহায়তা বা চিকিৎসা সেবা দিতে গিয়েও প্রাণ হারাচ্ছেন অনেকে। ফিলিস্তিন রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি (পিআরসিএস) জানিয়েছে, সংস্থাটির ২৬ সদস্য নিহত হয়েছেন ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায়। আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়।

পিআরসিএস জানায়, গাজায় সংঘাত শুরুর পর থেকে এখন পর্যন্ত তাদের ২৬ সদস্য নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে প্রায় ১৫ জন কর্মী দায়িত্ব পালনের সময় ইসরায়েলি হামলায় নিহত হয়েছেন। এমনকি তাঁরা রেড ক্রিসেন্টের পোশাক পরা ছিলেন। তারপরও তাদের ওপর হামলা চালানো হয়েছে।

এদিকে গাজার আল–শিফা হাসপাতালে ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় চার শতাধিক ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। গাজার মিডিয়া অফিস জানিয়েছে, ১৩ দিন ধরে হাসপাতালে অভিযান চালাচ্ছে ইসরায়েলি সেনারা। এতে রোগী, বাস্তুচ্যুত মানুষ, মেডিকেল কর্মীসহ চার শতাধিক মানুষ নিহত হয়েছে।

গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলে আকস্মিক হামলা চালায় ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস। এর জেরে গাজায় অভিযান শুরু করে ইসরায়েল। গত পাঁচ মাসের বেশি সময় ধরে গাজায় হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েলি বাহিনী। এখন পর্যন্ত ইসরায়েলি হামলায় ৩২ হাজার ৭০০ জনের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছে ৭৫ হাজারের বেশি মানুষ। আর বাস্তুচ্যূত ২৩ লাখ গাজাবাসীর প্রায় সবাই।