ঢাকা ০৪:২৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

নাবিকদের দেশে ফিরতে ১৫ থেকে ২০ দিন সময় লাগবে: প্রতিমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ১২:৪৭:৪৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪
  • / ৪২৪ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

এক মাস পর সোমালিয়ান জলদস্যুদের হাতে জিম্মি হওয়া নাবিকদের উদ্ধার করা হয়েছে। তাদের দেশে ফিরতে ১৫ থেকে ২০ দিন সময় লাগবে বলে জানিয়েছেন নৌ পরবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

আজ (রোববার, ১৪ এপ্রিল) রাজধানীর মিন্টো রোডে নিজের বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের প্রথম বিবেচনা ছিল নাবিকদের সুস্থভাবে ফিরিয়ে আনা। এটা আমাদের সাফল্য। এর আগে এতো অল্প সময়ে উদ্ধার করার কোনো নজির নেই।’

পহেলা বৈশাখের দিনে নাবিকদের উদ্ধার হওয়া আনন্দের উল্লেখ করে খালিদ মাহমুদ বলেন, ‘বাংলা নববর্ষের প্রথম দিনে এমন একটা সংবাদ আমাদের উৎসবকে আরও রাঙিয়েছে।’

মুক্তিপণের বিষয়ে প্রতিমন্ত্রীর কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি জানান, টাকা দিয়ে তাদের ছাড়িয়ে আনা হয়েছে বলে তার জানা নেই।

খালিদ আহমেদ বলেন, ‘টাকা দিয়ে তাদের ছাড়িয়ে আনা হয়েছে বলে আমার জানা নেই। যেগুলো শোনা যাচ্ছে এগুলো ঠিক না। আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর ওপর চাপ ছিল। তারা আন্তরিকতার সাথে তৎপরতা করেছে। আন্তর্জাতিক চাপেই আলোচনার মাধ্যমে মুক্তিপণ ছাড়াই মুক্ত হয়েছে নাবিকরা।’

বাংলাদেশ সময় রাত ২ টা ৩০ মিনিটে নাবিকদের উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী।

এদিকে শিপিং করপোরেশনের মহাপরিচালক বলেন, ‘জাহাজ আরব আমিরাতে কয়লা খালাস করবে। এতে ৬ দিন সময় লাগবে।’

এর আগে গত ১২ মার্চ দুপুরে কেএসআরএমের মালিকানাধীন এসআর শিপিংয়ের জাহাজটি জিম্মি করে সোমালিয়ান দস্যুরা। ৫৮ হাজার মেট্রিক টন কয়লা নিয়ে গত ৪ মার্চ আফ্রিকার মোজাম্বিকের মাপুটো বন্দর থেকে যাত্রা শুরু করেছিল এমভি আবদুল্লাহ।

নিউজটি শেয়ার করুন

নাবিকদের দেশে ফিরতে ১৫ থেকে ২০ দিন সময় লাগবে: প্রতিমন্ত্রী

আপডেট সময় : ১২:৪৭:৪৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

এক মাস পর সোমালিয়ান জলদস্যুদের হাতে জিম্মি হওয়া নাবিকদের উদ্ধার করা হয়েছে। তাদের দেশে ফিরতে ১৫ থেকে ২০ দিন সময় লাগবে বলে জানিয়েছেন নৌ পরবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

আজ (রোববার, ১৪ এপ্রিল) রাজধানীর মিন্টো রোডে নিজের বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের প্রথম বিবেচনা ছিল নাবিকদের সুস্থভাবে ফিরিয়ে আনা। এটা আমাদের সাফল্য। এর আগে এতো অল্প সময়ে উদ্ধার করার কোনো নজির নেই।’

পহেলা বৈশাখের দিনে নাবিকদের উদ্ধার হওয়া আনন্দের উল্লেখ করে খালিদ মাহমুদ বলেন, ‘বাংলা নববর্ষের প্রথম দিনে এমন একটা সংবাদ আমাদের উৎসবকে আরও রাঙিয়েছে।’

মুক্তিপণের বিষয়ে প্রতিমন্ত্রীর কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি জানান, টাকা দিয়ে তাদের ছাড়িয়ে আনা হয়েছে বলে তার জানা নেই।

খালিদ আহমেদ বলেন, ‘টাকা দিয়ে তাদের ছাড়িয়ে আনা হয়েছে বলে আমার জানা নেই। যেগুলো শোনা যাচ্ছে এগুলো ঠিক না। আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর ওপর চাপ ছিল। তারা আন্তরিকতার সাথে তৎপরতা করেছে। আন্তর্জাতিক চাপেই আলোচনার মাধ্যমে মুক্তিপণ ছাড়াই মুক্ত হয়েছে নাবিকরা।’

বাংলাদেশ সময় রাত ২ টা ৩০ মিনিটে নাবিকদের উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী।

এদিকে শিপিং করপোরেশনের মহাপরিচালক বলেন, ‘জাহাজ আরব আমিরাতে কয়লা খালাস করবে। এতে ৬ দিন সময় লাগবে।’

এর আগে গত ১২ মার্চ দুপুরে কেএসআরএমের মালিকানাধীন এসআর শিপিংয়ের জাহাজটি জিম্মি করে সোমালিয়ান দস্যুরা। ৫৮ হাজার মেট্রিক টন কয়লা নিয়ে গত ৪ মার্চ আফ্রিকার মোজাম্বিকের মাপুটো বন্দর থেকে যাত্রা শুরু করেছিল এমভি আবদুল্লাহ।