ঢাকা ০৩:৪৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

দেশে এখন ছদ্মবেশে একদলীয় শাসন চলছে: মির্জা ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০৩:৪৫:০৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৫ মার্চ ২০২৪
  • / ৪৭০ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, গণতন্ত্রের কথা বলে দেশে এখন ছদ্মবেশে একদলীয় শাসন চলছে । বর্তমান সরকারের ক্ষমতায় থাকার কোন নৈতিক অধিকার নেই বলে মন্তব্য করে তিনি জানান, দেশে একজন ব্যক্তি, একটি দল ও একটি পরিবার ছাড়া আর কিছুই নেই।

সোমবার (২৫ মার্চ) নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে আয়োজিত মুক্তিযোদ্ধা সমাবেশে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে প্রতিরোধের হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করুন। কোন দেশ যদি প্রভুত্ব করতে চায়। এ দেশের মানুষ প্রভুত্ব মেনে নেবে না, অতীতেও নেয়নি। সব শ্রেণী পেশার মানুষকে আন্দোলনে সস্পৃক্ত করতে পারলেই হবে গণ অভ্যুত্থান, হবে জনগণের বিজয়।

এর আগে বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জয়নুল আবেদিন ফারুক বলেন, বিএনপি মহাসচিবকে তিন মাস জেলে রেখে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিয়েছে। এ সরকার মানবিক না। দিল্লির শাসন গ্রহণ করার জন্য দেশ স্বাধীন হয়নি। ভারতীয় পণ্য বর্জনের ঘোষণা দেয়া ওবায়দুল কাদেরের গায়ে জ্বালা শুরু হয়েছে। সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই অব্যাহত থাকবে।আশার আলোর বৃষ্টি বাংলাদেশে আসবে।

মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, দেশে গণতন্ত্র না থাকায় মুক্তিযোদ্ধার আজকের সমাবেশে এসেছেন। মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসকে বিকৃত করা হয়েছে। বিভিন্ন পেশার মানুষ মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছে। দেশ প্রেমে উদ্ভুদ্ধ হয়ে সাধারণ মানুষ যুদ্ধে ঝাপিয়ে পড়েছিল। আওয়ামী লীগ প্রথমে স্বাধীনতা যুদ্ধ স্বীকৃতি দেয়নি। ছাত্রসহ সাধারণ মানুষ মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছিল। মুক্তিযুদ্ধ করেছে সাধারণ মানুষ কৃতিত্ব নিতে চায় আওয়ামী লীগ। আওয়ামী লীগের মধ্যে গণতন্ত্র চেতনা কখনো ছিলনানএখনো নেই। সাত জানুয়ারীর নির্বাচনের নামে প্রহসন হয়েছে কেউ স্বীকৃতি দেয়নি। বিএনপি ক্ষমতায় যেতে নয় জনগণের অধিকার ফিরিয়ে দিতে আন্দোলন করছি। বিএনপি নেতাকর্মীদের জেলে রেখে নির্বাচন করছে। জেলখানায় দলের নেতাকর্মীরা দুবির্ষহ জীবন কাটিয়েছে। গণতন্ত্র পণতিষ্ঠার জন্য যুদ্ধ করা হয়েছিল। সেটা ধ্বংস করেছে আওয়ামী লীগ। বেগম জিয়ার নেতৃত্ব আগামীর আন্দোলন শুরু হবে। গণতান্ত্রিক আন্দোলন ব্যর্থ হয়নি হবেনা।

নিউজটি শেয়ার করুন

দেশে এখন ছদ্মবেশে একদলীয় শাসন চলছে: মির্জা ফখরুল

আপডেট সময় : ০৩:৪৫:০৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৫ মার্চ ২০২৪

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, গণতন্ত্রের কথা বলে দেশে এখন ছদ্মবেশে একদলীয় শাসন চলছে । বর্তমান সরকারের ক্ষমতায় থাকার কোন নৈতিক অধিকার নেই বলে মন্তব্য করে তিনি জানান, দেশে একজন ব্যক্তি, একটি দল ও একটি পরিবার ছাড়া আর কিছুই নেই।

সোমবার (২৫ মার্চ) নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে আয়োজিত মুক্তিযোদ্ধা সমাবেশে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে প্রতিরোধের হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করুন। কোন দেশ যদি প্রভুত্ব করতে চায়। এ দেশের মানুষ প্রভুত্ব মেনে নেবে না, অতীতেও নেয়নি। সব শ্রেণী পেশার মানুষকে আন্দোলনে সস্পৃক্ত করতে পারলেই হবে গণ অভ্যুত্থান, হবে জনগণের বিজয়।

এর আগে বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জয়নুল আবেদিন ফারুক বলেন, বিএনপি মহাসচিবকে তিন মাস জেলে রেখে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিয়েছে। এ সরকার মানবিক না। দিল্লির শাসন গ্রহণ করার জন্য দেশ স্বাধীন হয়নি। ভারতীয় পণ্য বর্জনের ঘোষণা দেয়া ওবায়দুল কাদেরের গায়ে জ্বালা শুরু হয়েছে। সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই অব্যাহত থাকবে।আশার আলোর বৃষ্টি বাংলাদেশে আসবে।

মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, দেশে গণতন্ত্র না থাকায় মুক্তিযোদ্ধার আজকের সমাবেশে এসেছেন। মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসকে বিকৃত করা হয়েছে। বিভিন্ন পেশার মানুষ মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছে। দেশ প্রেমে উদ্ভুদ্ধ হয়ে সাধারণ মানুষ যুদ্ধে ঝাপিয়ে পড়েছিল। আওয়ামী লীগ প্রথমে স্বাধীনতা যুদ্ধ স্বীকৃতি দেয়নি। ছাত্রসহ সাধারণ মানুষ মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছিল। মুক্তিযুদ্ধ করেছে সাধারণ মানুষ কৃতিত্ব নিতে চায় আওয়ামী লীগ। আওয়ামী লীগের মধ্যে গণতন্ত্র চেতনা কখনো ছিলনানএখনো নেই। সাত জানুয়ারীর নির্বাচনের নামে প্রহসন হয়েছে কেউ স্বীকৃতি দেয়নি। বিএনপি ক্ষমতায় যেতে নয় জনগণের অধিকার ফিরিয়ে দিতে আন্দোলন করছি। বিএনপি নেতাকর্মীদের জেলে রেখে নির্বাচন করছে। জেলখানায় দলের নেতাকর্মীরা দুবির্ষহ জীবন কাটিয়েছে। গণতন্ত্র পণতিষ্ঠার জন্য যুদ্ধ করা হয়েছিল। সেটা ধ্বংস করেছে আওয়ামী লীগ। বেগম জিয়ার নেতৃত্ব আগামীর আন্দোলন শুরু হবে। গণতান্ত্রিক আন্দোলন ব্যর্থ হয়নি হবেনা।