শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১০:০৫ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
রাজশাহীতে কুখ্যাত ভূমি প্রতারক ফারজানাসহ আটক-৩ রাজশাহীতে আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সম্মেলন কলমাকান্দায় সচেতনতা তৈরিতে বৈঠক শ্রীমঙ্গলে তিন দিনব্যাপী পিঠা উৎসব শুরু শ্রীমঙ্গলে টপসয়েল কাটার দায়ে ১ জনের ৫০ হাজার টাকা দন্ড রাস্তাঘাটের ব্যাপক উন্নয়নের পাশাপাশি দুর্ঘটনা অনেক বেড়েছে : সংসদে হানিফ সোনার চামচে রাজ-পরীমণির ছেলের মুখে ভাত! বাংলাদেশ সফরে ইংল্যান্ডের দল ঘোষণা চীন বাংলাদেশের বৃহৎ অর্থনৈতিক ও বাণিজ্যিক অংশীদার : বাণিজ্যমন্ত্রী স্মার্ট বাংলাদেশ নির্মাণে সরকার কাজ করছে : স্পিকার হিরো আলমের অভিযোগের কোনও ভিত্তি নেই : ইসি রাশেদা দেশে মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ২০৩১৬ : সংসদে শিক্ষামন্ত্রী রাজউকে অনলাইনে নকশার আবেদন ৩৪ হাজার : সংসদে গৃহায়ণ ও গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী আইএমএফের ঋণের প্রথম কিস্তি পেল বাংলাদেশ নোবিপ্রবিতে আট দাবিতে তৃতীয় দিনও আন্দোলন অব্যহত

তারেক-আমানউল্লাহর মানসিক চিকিৎসা প্রয়োজন : শামীম ওসমান

তারেক-আমানউল্লাহর মানসিক চিকিৎসা প্রয়োজন : শামীম ওসমান
সংসদ সদস্য শামীম ওসমান

নিজস্ব প্রতিবেদক : 
লন্ডনপ্রবাসী বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও ভাইস চেয়ারম্যান আমানউল্লাহ আমানের মস্তিস্ক বিকৃতি ঘটেছে। তাদের মানসিক চিকিৎসা প্রয়োজন বলে মন্তব্য করেছেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান।

আজ শুক্রবার (২১ অক্টোবর) বিকেলে নগরীর চাষাঢ়ায় রাইফেল ক্লাবে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন তিনি।

তারেক রহমান ও আমানউল্লাহ আমানকে ইঙ্গিত করে শামীম ওসমান বলেন, জনগণ পাশে না থাকলে ডিপ্রেশন ও হতাশা থেকে মানুষ বিভিন্ন ধরনের মানসিক ভারসাম্যহীন কথা বলে থাকেন।

শামীম ওসমান বলেন, আগামী ১০ ডিসেম্বর বেগম খালেদা জিয়ার নির্দেশে বাংলাদেশ চলবে, তারেক রহমান এমন ঘোষণা দিয়ে নিজের মস্তিস্ক বিকৃতির প্রমাণ দিয়েছেন। তার সাথে সুর মিলিয়ে দলের ভাইস চেয়ারম্যান আমানউল্লাহ আমানও একই কথা বলছেন। পাবনায় অনেক ভালো মানসিক চিকিৎসাকেন্দ্র আছে। সেখানে নিয়ে তাদের নিয়ে চিকিৎসা করানো প্রয়োজন।

এর আগে সংসদ সদস্য শামীম ওসমান জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের নিয়ে ফতুল্লার ইসদাইর এলাকায় ওসমানী স্টেডিয়ামে যান। সেখানে আগামী ২৩ অক্টোবর জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের মঞ্চ ও প্যান্ডেল নির্মাণ কাজ পরিদর্শন করেন।

জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে সভাপতি প্রার্থী হচ্ছেন কিনা-সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে শামীম ওসমান বলেন, বিশ্বাস করেন আমি সভাপতি বা কোনো প্রার্থী না। নিরানব্বই পয়েন্ট নিরানব্বই পার্সেন্ট সত্য কথা।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাকে ও আমার পরিবারকে অনেক মূল্যায়ন করেছেন। মন্ত্রিত্বের প্রস্তাবও আমাকে বেশ কয়েকবার দেয়া হয়েছিল। তবে আমি দলীয় পদপদবির জন্য রাজনীতি করি না। আমি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু ও তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একজন সাধারণ কর্মী। আমি কর্মী হয়েই থাকতে চাই। অনেক নেতা আছে। আমার নেতা হওয়ার কোনো ইচ্ছা নেই। দলের কর্মী হিসেবে পরিচয় দিতেই আমি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি।

জেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিল প্রসঙ্গে শামীম ওসমান বলেন, জেলা আওয়ামী লীগের কমিটিতে দায়িত্ব পালনের জন্য বর্তমান সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ অনেক সিনিয়র যোগ্য নেতা রয়েছেন। আমি মনে করি আবদুল হাই ভাই ও আনোয়ার ভাইয়ের মতো সিনিয়ি নেতা আমাদের মাথার ওপর থাকা দরকার। সিনিয়র যোগ্য নেতাদেরকেই পুনরায় দায়িত্ব দেয়া উচিত।

আওয়ামী লীগ নেতা শামীম ওসমান বলেন, তবে কাউন্সিলে কেন্দ্রীয় নেতারা যাদেরকেই নির্বাচন করুক তাদের প্রতি আমার অনুরোধ থাকবে ঐক্যবদ্ধ হয়ে দলের জন্য কাজ করতে হবে। সামনে অনেক কঠিন সময় আসছে। সেই সময়টা আমাদের সম্মিলিতভাবে মোকাবিলা করতে হবে।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *