ঢাকা ১০:৫৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

ডামুড্যায় সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে গিয়ে প্রাণ হারালো দুই শ্রমিক

মোহাম্মদ নান্নু মৃধা, শরীয়তপুর প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৭:৪৯:০৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪
  • / ৪১৭ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
শরীয়তপুরের ডামুড্যাতে সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে নেমে বিষাক্ত গ্যাসে নিঃশ্বাস বন্ধ হয়ে দুই পরিছন্নতাকর্মীর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) দিনগত রাত দেড়টার দিকে উপজেলার দারুল আমান ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর ডামুড্যা এলাকার কবির সরদারের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হলেন, বগুড়া জেলার সোনাতলা থানার পশ্চিম টেকানী এলাকার দুলু শেখের ছেলে মালেক শেখ (৪৫) ও পূর্ব টেকানী এলাকার আফসার বেপারীর ছেলে লিটন বেপারী (৩৫)। তারা দুজন দীর্ঘদিন যাবত ডামুড্যায় বসবাস করে বিভিন্ন জনের পরিছন্নতাকর্মীর কাজ করতেন বলে স্থানীয়রা জানান।
স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা যায়, কবির সরদারের বাড়ির সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করার জন্য মালেক ও লিটন নামের দুই পরিছন্নতাকর্মীকে (সুইপার) ১০ হাজার টাকা চুক্তিতে নিয়ে আসা হয়। তারা ট্যাংকের ভেতরে পাইপ বসিয়ে ময়লা অপসারণ করছিলেন। এসময় লিটন ট্যাংকের ভেতরে নামলে হঠাৎ করেই নিচে পড়ে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করতে অপর শ্রমিক মালেক শেখ নামলে তিনিও আর উপরে উঠে আসেননি। তাদের সাড়া না পেলে  ফায়ারসার্ভিসে খবর দেন বাড়ির লোকজন। খবর পেয়ে ফায়ারসার্ভিস এসে দুজনকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ নিয়ে গেলে কর্তব্যরত  চিকিৎসক তাদের দুজনকে মৃত ঘোষণা করেন।
এ বিষয়ে ডামুড্যা ফায়ার সার্ভিসের টিম লিডার প্রদীপ কীর্তনীয়া বলেন, আমরা খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে আসি। সেপটিক ট্যাংকের ভেতর প্রচুর বিষাক্ত গ্যাস ছিলো। আমরা গ্যাস অপসারণ করে ভিকটিম দুজনকে উদ্ধার করি।
জানতে চাইলে ডামুড্যা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এমারত হোসেন বলেন, খবর পেয়ে রাতেই আমরা ঘটনাস্থলে যাই এবং মরদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠাই। ভুক্তভোগী পরিবার  অভিযোগ করলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
বাখ//আর

নিউজটি শেয়ার করুন

ডামুড্যায় সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে গিয়ে প্রাণ হারালো দুই শ্রমিক

আপডেট সময় : ০৭:৪৯:০৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪
শরীয়তপুরের ডামুড্যাতে সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে নেমে বিষাক্ত গ্যাসে নিঃশ্বাস বন্ধ হয়ে দুই পরিছন্নতাকর্মীর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) দিনগত রাত দেড়টার দিকে উপজেলার দারুল আমান ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর ডামুড্যা এলাকার কবির সরদারের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হলেন, বগুড়া জেলার সোনাতলা থানার পশ্চিম টেকানী এলাকার দুলু শেখের ছেলে মালেক শেখ (৪৫) ও পূর্ব টেকানী এলাকার আফসার বেপারীর ছেলে লিটন বেপারী (৩৫)। তারা দুজন দীর্ঘদিন যাবত ডামুড্যায় বসবাস করে বিভিন্ন জনের পরিছন্নতাকর্মীর কাজ করতেন বলে স্থানীয়রা জানান।
স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা যায়, কবির সরদারের বাড়ির সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করার জন্য মালেক ও লিটন নামের দুই পরিছন্নতাকর্মীকে (সুইপার) ১০ হাজার টাকা চুক্তিতে নিয়ে আসা হয়। তারা ট্যাংকের ভেতরে পাইপ বসিয়ে ময়লা অপসারণ করছিলেন। এসময় লিটন ট্যাংকের ভেতরে নামলে হঠাৎ করেই নিচে পড়ে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করতে অপর শ্রমিক মালেক শেখ নামলে তিনিও আর উপরে উঠে আসেননি। তাদের সাড়া না পেলে  ফায়ারসার্ভিসে খবর দেন বাড়ির লোকজন। খবর পেয়ে ফায়ারসার্ভিস এসে দুজনকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ নিয়ে গেলে কর্তব্যরত  চিকিৎসক তাদের দুজনকে মৃত ঘোষণা করেন।
এ বিষয়ে ডামুড্যা ফায়ার সার্ভিসের টিম লিডার প্রদীপ কীর্তনীয়া বলেন, আমরা খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে আসি। সেপটিক ট্যাংকের ভেতর প্রচুর বিষাক্ত গ্যাস ছিলো। আমরা গ্যাস অপসারণ করে ভিকটিম দুজনকে উদ্ধার করি।
জানতে চাইলে ডামুড্যা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এমারত হোসেন বলেন, খবর পেয়ে রাতেই আমরা ঘটনাস্থলে যাই এবং মরদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠাই। ভুক্তভোগী পরিবার  অভিযোগ করলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
বাখ//আর