ঢাকা ০৫:২৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সংবাদ প্রকাশের জেরে সাংবাদিক নাঈমকে হুমকি

মনজু বিজয় চৌধুরী (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৮:১৩:১৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ জুলাই ২০২৪
  • / ৪৫২ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়নের টাকা ইউপি চেয়ারম্যানের পকেটে!’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশের জেরে কালবেলার মৌলভীবাজার প্রতিনিধি ওমর ফারুক নাঈমকে মোবাইল ফোনে কল দিয়ে অসদাচারণ ও হুমকি প্রদান করা হয়েছে। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) দুপুরে তিনি মৌলভীবাজার মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) দায়ের করেছেন।

জিডিতে তিনি উল্লেখ করেন, গত ৯ জুলাই চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন কর্মসূচি তথ্য জানতে সদর উপজেলার চাঁদনীঘাট ইউপির চেয়ারম্যান আখতার উদ্দিনকে কল করে তথ্য নিয়ে তিনি কালবেলায় একটি সংবাদ করেন। ওই সংবাদ প্রকাশের পর চেয়ারম্যান আখতার উদ্দিন নাঈমের অনুমতি ছাড়া তার ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডিতে নাঈমের নাম ও ব্যক্তিগত মোবাইল নম্বর দিয়ে সংবাদ প্রকাশ নিয়ে একটি পোস্ট করেন। এরই ধারাবাহিকতায় সংবাদ প্রকাশের বিষয় নিয়ে গত ১০ জুলাই দুপুরে নাঈমের ব্যবহৃত মোবাইল নম্বরে অজ্ঞাতনামা দুইটি নম্বর থেকে কল দিয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও তাকে দেখে নেওয়ার হুমকি দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে ওমর ফারুক নাঈম বলেন, পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য সুর্নিদিষ্ট তথ্য প্রমাণের ভিত্তিতে আমি নিউজটি করেছি। কিন্তু ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আমার অনুমতি ছাড়া আমার নাম ও মোবাইল নম্বর তার ফেসবুকে পোস্ট করেছেন। এটি একটি সাইবার অপরাধ। নিউজে উনার বক্তব্য আছে। চাইলে পত্রিকায় প্রতিবাদ দিতে পারতেন। কিন্তু আমার পেশাগত কাজে বাধা সৃষ্টি ও আমাকে লাঞ্চিত করার অধিকার তিনি রাখেন না। বর্তমানে অজ্ঞাতনাম ব্যক্তির হুমকির বিষয়ে আমি ও আমার পরিবার ক্ষতিসাধনের আশঙ্কায় আছি। মৌলভীবাজারের পুলিশ সুপার মো. মনজুর রহমান বলেন, বিষয়টি নিয়ে পুলিশ কাজ করছে।

বাখ//আর

নিউজটি শেয়ার করুন

সংবাদ প্রকাশের জেরে সাংবাদিক নাঈমকে হুমকি

আপডেট সময় : ০৮:১৩:১৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ জুলাই ২০২৪

চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়নের টাকা ইউপি চেয়ারম্যানের পকেটে!’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশের জেরে কালবেলার মৌলভীবাজার প্রতিনিধি ওমর ফারুক নাঈমকে মোবাইল ফোনে কল দিয়ে অসদাচারণ ও হুমকি প্রদান করা হয়েছে। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) দুপুরে তিনি মৌলভীবাজার মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) দায়ের করেছেন।

জিডিতে তিনি উল্লেখ করেন, গত ৯ জুলাই চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন কর্মসূচি তথ্য জানতে সদর উপজেলার চাঁদনীঘাট ইউপির চেয়ারম্যান আখতার উদ্দিনকে কল করে তথ্য নিয়ে তিনি কালবেলায় একটি সংবাদ করেন। ওই সংবাদ প্রকাশের পর চেয়ারম্যান আখতার উদ্দিন নাঈমের অনুমতি ছাড়া তার ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডিতে নাঈমের নাম ও ব্যক্তিগত মোবাইল নম্বর দিয়ে সংবাদ প্রকাশ নিয়ে একটি পোস্ট করেন। এরই ধারাবাহিকতায় সংবাদ প্রকাশের বিষয় নিয়ে গত ১০ জুলাই দুপুরে নাঈমের ব্যবহৃত মোবাইল নম্বরে অজ্ঞাতনামা দুইটি নম্বর থেকে কল দিয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও তাকে দেখে নেওয়ার হুমকি দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে ওমর ফারুক নাঈম বলেন, পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য সুর্নিদিষ্ট তথ্য প্রমাণের ভিত্তিতে আমি নিউজটি করেছি। কিন্তু ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আমার অনুমতি ছাড়া আমার নাম ও মোবাইল নম্বর তার ফেসবুকে পোস্ট করেছেন। এটি একটি সাইবার অপরাধ। নিউজে উনার বক্তব্য আছে। চাইলে পত্রিকায় প্রতিবাদ দিতে পারতেন। কিন্তু আমার পেশাগত কাজে বাধা সৃষ্টি ও আমাকে লাঞ্চিত করার অধিকার তিনি রাখেন না। বর্তমানে অজ্ঞাতনাম ব্যক্তির হুমকির বিষয়ে আমি ও আমার পরিবার ক্ষতিসাধনের আশঙ্কায় আছি। মৌলভীবাজারের পুলিশ সুপার মো. মনজুর রহমান বলেন, বিষয়টি নিয়ে পুলিশ কাজ করছে।

বাখ//আর