ঢাকা ০৪:৪৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

গুজরাটে সেতুধসের ঘটনায় গ্রেফতার ৯

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:৩৩:০৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১ নভেম্বর ২০২২
  • / ৪৫৪ বার পড়া হয়েছে

ফাইল ছবি

বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : 
ভারতের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য গুজরাটের মোরবি জেলায় মাচ্ছু নদীতে সেতু ভেঙে পড়ার ঘটনায় ৯ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারদের মধ্যে ওরেভা কোম্পানির কয়েকজন ম্যানেজার ছাড়াও রয়েছেন সেতুর টিকিট কালেক্টর, সেতুর পুনঃসংস্কার করা ঠিকাদার এবং তিনজন নিরাপত্তাকর্মী; যাদের দায়িত্ব ছিল ভিড় সামাল দেওয়া।

এ বিষয়ে গুজরাট পুলিশের রাজকোট রেঞ্জের ইনস্পেক্টর জেনারেল (আইজি) অশোক যাদব সাংবাদিকদের বলেন, ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় এফআইআর দায়েরের পর আমরা নয়জনকে গ্রেফতার করেছি। তাদের মধ্যে আছেন ওরেভা গ্রুপের দুই ম্যানেজার, দুইজন টিকিট কালেক্টর, দুইজন ঠিকাদার এবং তিনজন নিরাপত্তারক্ষী। গাফিলতির জন্য তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে।

রোববার (৩০ অক্টোবর) সন্ধ্যায় ঝুলন্ত এই সেতুটি ভেঙে পড়ার ঘটনায় শেষ খবর পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে কমপক্ষে ১৪১ জনে। এছাড়া আহতও হয়েছেন অনেকে। প্রায় ১৭৭ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে এবং আরো কয়েকজনের অনুসন্ধান চলছে বলে জানান কর্মকর্তারা।

প্রায় ১৫০ বছর আগে নির্মিত মোরবির ঝুলন্ত এই সেতু ভারতের ঐতিহাসিক স্থাপনার তালিকায়ও রয়েছে। গুজরাটের স্থানীয় নববর্ষ উপলক্ষে মেরামতের পর গত চারদিন আগে (২৬ অক্টোবর) সেতুটি পুনরায় খুলে দেওয়া হয়।

মোরবি পৌরসভার কর্মকর্তারা বলেন, যথাযথ ফিটনেস সার্টিফিকেট ছাড়াই সেতুটি পুনরায় খুলে দেওয়া হয়েছিল। স্থানীয় একটি বেসরকারি ট্রাস্ট সেতুটির মেরামত ও সংস্কার কাজ করেছে। কিন্তু রাজ্য সরকারের ফিটনেস সার্টিফিকেট ছাড়াই ওই ট্রাস্ট সেতুটি খুলে দেয়।

ওই ঘটনায় ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৪ ধারা, ৩০৮ ধারা এবং ১১৪ ধারায় মামলা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে রাজকোট রেঞ্জের ইনস্পেক্টর জেনারেল বলেন, মোরবিতে একটি দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা ঘটেছে। আমরা সমবেদনা প্রকাশ করছি। সব অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আমরা ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা করেছি। উদ্ধারকাজ তত্ত্বাবধানে পুলিশ কাজ করছে।

সেই সঙ্গে তিনি আশ্বাস দেন, যখনই আমাদের হাতে কোনো তথ্যপ্রমাণ আসবে, আমরা জড়িতকে গ্রেফতার করব। এরইমধ্যে বিশেষ তদন্তকারী দল গঠন করা হয়েছে। সূত্র : এনডিটিভি, হিন্দুস্তান টাইমস।

নিউজটি শেয়ার করুন

গুজরাটে সেতুধসের ঘটনায় গ্রেফতার ৯

আপডেট সময় : ০২:৩৩:০৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১ নভেম্বর ২০২২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : 
ভারতের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য গুজরাটের মোরবি জেলায় মাচ্ছু নদীতে সেতু ভেঙে পড়ার ঘটনায় ৯ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারদের মধ্যে ওরেভা কোম্পানির কয়েকজন ম্যানেজার ছাড়াও রয়েছেন সেতুর টিকিট কালেক্টর, সেতুর পুনঃসংস্কার করা ঠিকাদার এবং তিনজন নিরাপত্তাকর্মী; যাদের দায়িত্ব ছিল ভিড় সামাল দেওয়া।

এ বিষয়ে গুজরাট পুলিশের রাজকোট রেঞ্জের ইনস্পেক্টর জেনারেল (আইজি) অশোক যাদব সাংবাদিকদের বলেন, ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় এফআইআর দায়েরের পর আমরা নয়জনকে গ্রেফতার করেছি। তাদের মধ্যে আছেন ওরেভা গ্রুপের দুই ম্যানেজার, দুইজন টিকিট কালেক্টর, দুইজন ঠিকাদার এবং তিনজন নিরাপত্তারক্ষী। গাফিলতির জন্য তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে।

রোববার (৩০ অক্টোবর) সন্ধ্যায় ঝুলন্ত এই সেতুটি ভেঙে পড়ার ঘটনায় শেষ খবর পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে কমপক্ষে ১৪১ জনে। এছাড়া আহতও হয়েছেন অনেকে। প্রায় ১৭৭ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে এবং আরো কয়েকজনের অনুসন্ধান চলছে বলে জানান কর্মকর্তারা।

প্রায় ১৫০ বছর আগে নির্মিত মোরবির ঝুলন্ত এই সেতু ভারতের ঐতিহাসিক স্থাপনার তালিকায়ও রয়েছে। গুজরাটের স্থানীয় নববর্ষ উপলক্ষে মেরামতের পর গত চারদিন আগে (২৬ অক্টোবর) সেতুটি পুনরায় খুলে দেওয়া হয়।

মোরবি পৌরসভার কর্মকর্তারা বলেন, যথাযথ ফিটনেস সার্টিফিকেট ছাড়াই সেতুটি পুনরায় খুলে দেওয়া হয়েছিল। স্থানীয় একটি বেসরকারি ট্রাস্ট সেতুটির মেরামত ও সংস্কার কাজ করেছে। কিন্তু রাজ্য সরকারের ফিটনেস সার্টিফিকেট ছাড়াই ওই ট্রাস্ট সেতুটি খুলে দেয়।

ওই ঘটনায় ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৪ ধারা, ৩০৮ ধারা এবং ১১৪ ধারায় মামলা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে রাজকোট রেঞ্জের ইনস্পেক্টর জেনারেল বলেন, মোরবিতে একটি দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা ঘটেছে। আমরা সমবেদনা প্রকাশ করছি। সব অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আমরা ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা করেছি। উদ্ধারকাজ তত্ত্বাবধানে পুলিশ কাজ করছে।

সেই সঙ্গে তিনি আশ্বাস দেন, যখনই আমাদের হাতে কোনো তথ্যপ্রমাণ আসবে, আমরা জড়িতকে গ্রেফতার করব। এরইমধ্যে বিশেষ তদন্তকারী দল গঠন করা হয়েছে। সূত্র : এনডিটিভি, হিন্দুস্তান টাইমস।