ঢাকা ০৪:৩৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

গাজায় প্রকৃত নিহতের সংখ্যা প্রায় ২ লাখ: ল্যানসেট

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০২:২৯:৩৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ জুলাই ২০২৪
  • / ৪৩০ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় ৯ মাস ধরে নির্বিচার হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েল। গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, এই ৯ মাসে ইসরায়েলি হামলায় ৩৮ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। তবে ইংল্যান্ডভিত্তিক গবেষণা ও চিকিৎসা সাময়ীকি ল্যানসেটের দাবি, গাজায় নিহতের প্রকৃত সংখ্যা প্রায় দুই লাখ। সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে।

ল্যানসেটে প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদেন বলা হয়েছে, দাপ্তরিকভাবে নিহতের যে সংখ্যা প্রচার করা হচ্ছে, সেখানে ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় ধ্বংস ভবনগুলোর নিচে চাপা পড়া এবং খাদ্য ও স্বাস্থ্যসেবার অভাবে মৃতদের হিসাবে ধরা হয়নি। তাদের হিসাবে ধরলে নিহতের সংখ্যা ১ লাখ ৮৬ হাজারের বেশি হবে।

ল্যানসেটের প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, যুদ্ধে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয় খাদ্য সরবরাহ ও স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা। ফলে যারা হামলায় সরাসরি নিহত হয়, তাদের তুলনায় খাদ্য ও স্বাস্থ্যসেবার অভাবে মৃতের সংখ্যা ৩ গুণ বা ১৫ গুণ বেশি থাকে।

গাজার মোট জনসংখ্যা ২৩ লাখ। ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযানে প্রকৃত নিহতের সংখ্যা শতকরা হিসাবে ধরলে বলা যায়, গাজায় নিহত হয়েছেন সেখানকার মোট জনসংখ্যার ৮ শতাংশ।

নিউজটি শেয়ার করুন

গাজায় প্রকৃত নিহতের সংখ্যা প্রায় ২ লাখ: ল্যানসেট

আপডেট সময় : ০২:২৯:৩৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ জুলাই ২০২৪

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় ৯ মাস ধরে নির্বিচার হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েল। গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, এই ৯ মাসে ইসরায়েলি হামলায় ৩৮ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। তবে ইংল্যান্ডভিত্তিক গবেষণা ও চিকিৎসা সাময়ীকি ল্যানসেটের দাবি, গাজায় নিহতের প্রকৃত সংখ্যা প্রায় দুই লাখ। সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে।

ল্যানসেটে প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদেন বলা হয়েছে, দাপ্তরিকভাবে নিহতের যে সংখ্যা প্রচার করা হচ্ছে, সেখানে ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় ধ্বংস ভবনগুলোর নিচে চাপা পড়া এবং খাদ্য ও স্বাস্থ্যসেবার অভাবে মৃতদের হিসাবে ধরা হয়নি। তাদের হিসাবে ধরলে নিহতের সংখ্যা ১ লাখ ৮৬ হাজারের বেশি হবে।

ল্যানসেটের প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, যুদ্ধে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয় খাদ্য সরবরাহ ও স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা। ফলে যারা হামলায় সরাসরি নিহত হয়, তাদের তুলনায় খাদ্য ও স্বাস্থ্যসেবার অভাবে মৃতের সংখ্যা ৩ গুণ বা ১৫ গুণ বেশি থাকে।

গাজার মোট জনসংখ্যা ২৩ লাখ। ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযানে প্রকৃত নিহতের সংখ্যা শতকরা হিসাবে ধরলে বলা যায়, গাজায় নিহত হয়েছেন সেখানকার মোট জনসংখ্যার ৮ শতাংশ।