ঢাকা ০৫:১২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

কোলনকে হারিয়ে ১০ পয়েন্ট এগিয়ে লেভারকুসেন

স্পোর্টস ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৬:০৭:২০ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ মার্চ ২০২৪
  • / ৪৭৫ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

কোলনকে ২-০ গোলে পরাজিত করে বুন্দেসলিগায় বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখের থেকে ১০ পয়েন্টের সুস্পষ্ট ব্যবধানে এগিয়ে টেবিলের শীর্ষস্থান শক্তিশালী করেছে বায়ার লেভারকুসেন।

শুক্রবার ফ্রেইবার্গের সাথে ২-২ গোলে ড্র করে আবারো পয়েন্ট হারিয়েছে বায়ার্ন। আর এই সুযোগটাকেই সময়মত কাজে লাগিয়েছেন জাভি আলোনসোর লেভারকুসেন।

ম্যাচ শেষে লেভারকুসেনের সুইস মিডফিল্ডার গ্রানিত জাকা বলেছেন, ‘১০ পয়েন্ট এই মুহূর্তে অনেক বড় পার্থক্য। কিন্তু এখনো সবকিছু শেষ হেয় যায়নি। এখনো অনেক ম্যাচ বাকি, অনেক পয়েন্টের খেলা বাকি আছে। গাণিতিক ভাবে যেহেতু এখনো শিরোপা নির্ধারিত হয়নি সে কারনে আমরা বলতে পারছিনা সব কাজ শেষ। আমাদের পরিশ্রম চালিয়ে যেতে হবে। আরো কিছু পয়েন্ট সংগ্রহে রাখতে হবে।’

সব ধরনের প্রতিযোগিতায় ৩৪ ম্যাচে অপরাজিত থেকে জার্মান দল হিসেবে ঘরোয়া মৌসুম রেকর্ড গড়েছে লেভারকুসেন। কোলনের মাঠ কাল বৃষ্টি বিঘ্নিত কঠিন পরিস্থিতিতে সফরকারী লেভারকুসেন শুরু থেকেই আধিপত্য দেখিয়েছে। বুন্দেসলিগা টেবিলে ধুকতে থাকা কোলন ১৫ মিনিটের পর থেকে ১০ জন নিয়ে খেলতে বাধ্য হয়েছে।

৩৮ মিনিটে আলেহান্দ্রো গ্রিমালডোর সহায়তায় এগিয়ে যায় বায়র্ন। বামদিক থেকে তার লো ক্রস প্যাট্রিক শিক ফ্লিক করলে পোস্টের খুব কাছে থেকে জেরেমি ফ্রিমপং বল জালে জড়ান। মৌসুমে এটি ফ্রিমপংয়ের অষ্টম গোল। গ্রিমালডো ৭৩ মিনিটে নিজেই গোল দিয়েছেন। বদলী খেরোয়াড় আমিনে আদলির দারুন পাসে ব্যবধান দ্বিগুন করেন গ্রিমালডো। ফরোয়ার্ড ইয়ান থিয়েলেমান ১৫ মিনিটে জাকাকে বিপদজনক ভাবে ফাউল করে সরাসরি লাল কার্ড দেখে মাঠের বাইরে চলে গেলে বাকি সময় কোলনকে ১০ জন নিয়ে খেলতে হয়েছে। ঐ সিদ্ধান্তে রেফারি টোবিয়াস স্টিলারের উপর পুরো ম্যাচে আর সন্তুষ্ট হতে পারেনি কোলনের ৪০ হাজার স্বাগতিক সমর্থক।

কোলন এখনো সেফটি জোন থেকে আট পয়েন্ট দুরে রয়েছে। এখনো তারা রেলিগেশনের প্লে-অফে থেকে রক্ষা পেতে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। দুইবার কোলনের দুটি প্রচেষ্টা বারে লাগলে হতাশ হতে হয় সমর্থকদের।

তবে প্রথমবারের মত বুন্দেসলিগা শিরোপা জয়ের পথে আরো একধাপ এগিয়ে যেতে খুব একটা কষ্ট করতে হয়নি লেভারকুসেনকে। মৌসুম শেষ হতে আর মাত্র ১০ ম্যাচ বাকি।

নিউজটি শেয়ার করুন

কোলনকে হারিয়ে ১০ পয়েন্ট এগিয়ে লেভারকুসেন

আপডেট সময় : ০৬:০৭:২০ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ মার্চ ২০২৪

কোলনকে ২-০ গোলে পরাজিত করে বুন্দেসলিগায় বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখের থেকে ১০ পয়েন্টের সুস্পষ্ট ব্যবধানে এগিয়ে টেবিলের শীর্ষস্থান শক্তিশালী করেছে বায়ার লেভারকুসেন।

শুক্রবার ফ্রেইবার্গের সাথে ২-২ গোলে ড্র করে আবারো পয়েন্ট হারিয়েছে বায়ার্ন। আর এই সুযোগটাকেই সময়মত কাজে লাগিয়েছেন জাভি আলোনসোর লেভারকুসেন।

ম্যাচ শেষে লেভারকুসেনের সুইস মিডফিল্ডার গ্রানিত জাকা বলেছেন, ‘১০ পয়েন্ট এই মুহূর্তে অনেক বড় পার্থক্য। কিন্তু এখনো সবকিছু শেষ হেয় যায়নি। এখনো অনেক ম্যাচ বাকি, অনেক পয়েন্টের খেলা বাকি আছে। গাণিতিক ভাবে যেহেতু এখনো শিরোপা নির্ধারিত হয়নি সে কারনে আমরা বলতে পারছিনা সব কাজ শেষ। আমাদের পরিশ্রম চালিয়ে যেতে হবে। আরো কিছু পয়েন্ট সংগ্রহে রাখতে হবে।’

সব ধরনের প্রতিযোগিতায় ৩৪ ম্যাচে অপরাজিত থেকে জার্মান দল হিসেবে ঘরোয়া মৌসুম রেকর্ড গড়েছে লেভারকুসেন। কোলনের মাঠ কাল বৃষ্টি বিঘ্নিত কঠিন পরিস্থিতিতে সফরকারী লেভারকুসেন শুরু থেকেই আধিপত্য দেখিয়েছে। বুন্দেসলিগা টেবিলে ধুকতে থাকা কোলন ১৫ মিনিটের পর থেকে ১০ জন নিয়ে খেলতে বাধ্য হয়েছে।

৩৮ মিনিটে আলেহান্দ্রো গ্রিমালডোর সহায়তায় এগিয়ে যায় বায়র্ন। বামদিক থেকে তার লো ক্রস প্যাট্রিক শিক ফ্লিক করলে পোস্টের খুব কাছে থেকে জেরেমি ফ্রিমপং বল জালে জড়ান। মৌসুমে এটি ফ্রিমপংয়ের অষ্টম গোল। গ্রিমালডো ৭৩ মিনিটে নিজেই গোল দিয়েছেন। বদলী খেরোয়াড় আমিনে আদলির দারুন পাসে ব্যবধান দ্বিগুন করেন গ্রিমালডো। ফরোয়ার্ড ইয়ান থিয়েলেমান ১৫ মিনিটে জাকাকে বিপদজনক ভাবে ফাউল করে সরাসরি লাল কার্ড দেখে মাঠের বাইরে চলে গেলে বাকি সময় কোলনকে ১০ জন নিয়ে খেলতে হয়েছে। ঐ সিদ্ধান্তে রেফারি টোবিয়াস স্টিলারের উপর পুরো ম্যাচে আর সন্তুষ্ট হতে পারেনি কোলনের ৪০ হাজার স্বাগতিক সমর্থক।

কোলন এখনো সেফটি জোন থেকে আট পয়েন্ট দুরে রয়েছে। এখনো তারা রেলিগেশনের প্লে-অফে থেকে রক্ষা পেতে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। দুইবার কোলনের দুটি প্রচেষ্টা বারে লাগলে হতাশ হতে হয় সমর্থকদের।

তবে প্রথমবারের মত বুন্দেসলিগা শিরোপা জয়ের পথে আরো একধাপ এগিয়ে যেতে খুব একটা কষ্ট করতে হয়নি লেভারকুসেনকে। মৌসুম শেষ হতে আর মাত্র ১০ ম্যাচ বাকি।