ঢাকা ১১:৫৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

কৃষ্ণসাগরে রাশিয়ার শীর্ষ নৌ কমান্ডারসহ ৩৪ কর্মকর্তা নিহত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০১:২১:২৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৫০৯ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় রাশিয়ার নৌবাহিনীর কৃষ্ণসাগর বহরের প্রধানসহ ৩৪ কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। গতকাল সোমবার ইউক্রেনের বিশেষ বাহিনী এমন দাবি করে। মস্কোর দখলে থাকা ক্রিমিয়ার সেভাস্তোপোলে নৌবহরের সদর দপ্তরে ওই হামলা চালানো হয়। তবে হামলায় শীর্ষ নৌ-কর্মকর্তা অ্যাডমিরাল ভিক্টর সোকোলোভের মৃত্যুর বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য করেনি রাশিয়া।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, অ্যাডমিরাল ভিক্টর সোকোলোভ ছিলেন ব্ল্যাক সি ফ্লিটের কমান্ডার। যদি সোকোলোভের নিহত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায় তবে এটি হবে ক্রিমিয়ায় ইউক্রেনীয় বাহিনীর সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য অভিযানের একটি। ২০১৪ সালে ইউক্রেনের কাছ থেকে ওই অঞ্চল দখল করে নেয় মস্কো।

বার্তা আদান-প্রদানের অ্যাপ টেলিগ্রামে ইউক্রেনের বিশেষ বাহিনী জানিয়েছে, ব্ল্যাক সি ফ্লিটের সদর দপ্তরে হামলায় ওই অঞ্চলে রাশিয়ার শীর্ষ কমান্ডারসহ ৩৪ কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। হামলায় আহত হয়েছে শতাধিক মানুষ। হামলার পর সদর দপ্তরটি পুনরায় চালু করা সম্ভব হয়নি বলেও জানানো হয়।

তবে ইউক্রেনের বিশেষ বাহিনী ওই অঞ্চলে হামলায় হতাহত রুশ কর্মকর্তাদের প্রকৃত সংখ্যা কিভাবে জানতে পেরেছে তা নিশ্চিত হতে পারেনি রয়টার্স। বিষয়টি যাচাই করাও সম্ভব হয়নি। ২০১৪ সালে ইউক্রেনের কাছ থেকে ওই অঞ্চল দখল করে নেয় রাশিয়া।

মস্কোর দখলে থাকা ক্রিমিয়ায় সাম্প্রতিক সময়ে হামলা বাড়িয়েছে ইউক্রেন। এটি দুপক্ষের জন্যই একটি গুরুত্বপূর্ণ অঞ্চল। ওই অঞ্চল থেকেই গত ১৯ মাস ধরেই ইউক্রেনের ওপর বিভিন্ন সময়ে হামলা চালিয়ে আসছে রাশিয়া। তবে চলতি মাসের শুরুতে রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, ওই অঞ্চলে ইউক্রেন ১০টি ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

কৃষ্ণসাগরে রাশিয়ার শীর্ষ নৌ কমান্ডারসহ ৩৪ কর্মকর্তা নিহত

আপডেট সময় : ০১:২১:২৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় রাশিয়ার নৌবাহিনীর কৃষ্ণসাগর বহরের প্রধানসহ ৩৪ কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। গতকাল সোমবার ইউক্রেনের বিশেষ বাহিনী এমন দাবি করে। মস্কোর দখলে থাকা ক্রিমিয়ার সেভাস্তোপোলে নৌবহরের সদর দপ্তরে ওই হামলা চালানো হয়। তবে হামলায় শীর্ষ নৌ-কর্মকর্তা অ্যাডমিরাল ভিক্টর সোকোলোভের মৃত্যুর বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য করেনি রাশিয়া।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, অ্যাডমিরাল ভিক্টর সোকোলোভ ছিলেন ব্ল্যাক সি ফ্লিটের কমান্ডার। যদি সোকোলোভের নিহত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায় তবে এটি হবে ক্রিমিয়ায় ইউক্রেনীয় বাহিনীর সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য অভিযানের একটি। ২০১৪ সালে ইউক্রেনের কাছ থেকে ওই অঞ্চল দখল করে নেয় মস্কো।

বার্তা আদান-প্রদানের অ্যাপ টেলিগ্রামে ইউক্রেনের বিশেষ বাহিনী জানিয়েছে, ব্ল্যাক সি ফ্লিটের সদর দপ্তরে হামলায় ওই অঞ্চলে রাশিয়ার শীর্ষ কমান্ডারসহ ৩৪ কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। হামলায় আহত হয়েছে শতাধিক মানুষ। হামলার পর সদর দপ্তরটি পুনরায় চালু করা সম্ভব হয়নি বলেও জানানো হয়।

তবে ইউক্রেনের বিশেষ বাহিনী ওই অঞ্চলে হামলায় হতাহত রুশ কর্মকর্তাদের প্রকৃত সংখ্যা কিভাবে জানতে পেরেছে তা নিশ্চিত হতে পারেনি রয়টার্স। বিষয়টি যাচাই করাও সম্ভব হয়নি। ২০১৪ সালে ইউক্রেনের কাছ থেকে ওই অঞ্চল দখল করে নেয় রাশিয়া।

মস্কোর দখলে থাকা ক্রিমিয়ায় সাম্প্রতিক সময়ে হামলা বাড়িয়েছে ইউক্রেন। এটি দুপক্ষের জন্যই একটি গুরুত্বপূর্ণ অঞ্চল। ওই অঞ্চল থেকেই গত ১৯ মাস ধরেই ইউক্রেনের ওপর বিভিন্ন সময়ে হামলা চালিয়ে আসছে রাশিয়া। তবে চলতি মাসের শুরুতে রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, ওই অঞ্চলে ইউক্রেন ১০টি ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে।