ঢাকা ১১:০৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে এসেছে মৃত চিত্রা হ‌রিণ

পটুয়াখালী প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ১১:২৫:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
  • / ৪৩২ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সৈকতে একটি মৃত চিত্রা হরিণ ভেসে এসেছে। এর কিছু অংশে চামড়া হালকা উঠানো রয়েছে। মঙ্গলবার (২৮ মে) সন্ধ্যার দিকে কুয়াকাটার জিরো পয়েন্টের পশ্চিম পাশে ব্লক পয়েন্ট এলাকায় এটিকে দেখতে পায় স্থানীয়রা। পরে অ্যানিমেল লাভার্সের সদস্যদেরকে খবর দিলে তারা এসে বনবিভাগের সহায়তায় মাটি চাপা দেয়ার ব্যবস্থা করা হয়।
স্থানীয় প্রাণিকল্যাণ ও পরিবেশবাদী সংগঠন অ্যানিম্যাল লাভার্স অব পটুয়াখালী এর কুয়াকাটা টিমের সদস্য কে এম বাচ্চু  জানান, আমরা সন্ধ্যার দিকে খবর পাই বীচে একটি মৃত হরিণ ভেসে এসেছে তথ্য পেয়ে সাথে সাথেই আমি দ্রুত ঘটনাস্থলে যাই আমি মৃত দেহটা কে উদ্ধার করি। এটি একটি চিত্রা হরিণ। ঘূর্ণিঝড় রিমালে সুন্দরবন প্লাবিত হওয়ার কারণে এটা মারা গেছে। হরিণটা মুলত পানিতে বেশিক্ষণ টিকে না থাকতে পেরে মারা গিয়ে পানির সাথে এদিকে ভেসে এসেছে বলে আমাদের ধারনা।
কুয়াকাটা ডলফিন রক্ষা কমিটির টিম লিডার রুমান ইমতিয়াজ তুষার জানান, প্রাকৃতিক দূর্যোগের সময় মানুষের জন্য নানা ধরনের ব্যবস্থা থাকলেও আসলে এসব মালিকানাহীন বা বন্যপ্রাণীদের জন্য কোন নিরাপদ আশ্রয়স্থল নেই। এখন পর্যন্ত  বিভিন্ন মাধ্যমে জানতে পেরেছি ইতিমধ্যেই নাকি সুন্দরবন থেকে মৃত ভেসে আসা ৩৯ টি চিত্রা হরিণ উদ্ধার করা হয়েছে। আমরা এর পক্ষ থেকে দুঃখ প্রকাশ করছি।
এটা আমরা কখনোই আশা করিনা। এই দূর্যোগকালীন মুহুর্তেও আমরা বিপদগ্রস্ত প্রাণীদের রক্ষায় প্রস্তুত ছিলাম যদি হরিণ টা কে আমরা আহত অবস্থায়ও উদ্ধার করতে পারতাম সেক্ষেত্রে অনেক টা খুশি হতাম কস্ট করে হলেও তাকে বাঁচিয়ে রাখতাম।
তিনি আরো জানান, বিষয় টি মহিপুর বন বিভাগকে জানানোর চেষ্টা করছি। বনবিভাগ, অ্যানিমেল লাভার্সের সহযোগিতায় আমরা এটাকে মাটিচাপা দেয়ার চেষ্টা করছি।
বাখ//আর

নিউজটি শেয়ার করুন

কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে এসেছে মৃত চিত্রা হ‌রিণ

আপডেট সময় : ১১:২৫:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সৈকতে একটি মৃত চিত্রা হরিণ ভেসে এসেছে। এর কিছু অংশে চামড়া হালকা উঠানো রয়েছে। মঙ্গলবার (২৮ মে) সন্ধ্যার দিকে কুয়াকাটার জিরো পয়েন্টের পশ্চিম পাশে ব্লক পয়েন্ট এলাকায় এটিকে দেখতে পায় স্থানীয়রা। পরে অ্যানিমেল লাভার্সের সদস্যদেরকে খবর দিলে তারা এসে বনবিভাগের সহায়তায় মাটি চাপা দেয়ার ব্যবস্থা করা হয়।
স্থানীয় প্রাণিকল্যাণ ও পরিবেশবাদী সংগঠন অ্যানিম্যাল লাভার্স অব পটুয়াখালী এর কুয়াকাটা টিমের সদস্য কে এম বাচ্চু  জানান, আমরা সন্ধ্যার দিকে খবর পাই বীচে একটি মৃত হরিণ ভেসে এসেছে তথ্য পেয়ে সাথে সাথেই আমি দ্রুত ঘটনাস্থলে যাই আমি মৃত দেহটা কে উদ্ধার করি। এটি একটি চিত্রা হরিণ। ঘূর্ণিঝড় রিমালে সুন্দরবন প্লাবিত হওয়ার কারণে এটা মারা গেছে। হরিণটা মুলত পানিতে বেশিক্ষণ টিকে না থাকতে পেরে মারা গিয়ে পানির সাথে এদিকে ভেসে এসেছে বলে আমাদের ধারনা।
কুয়াকাটা ডলফিন রক্ষা কমিটির টিম লিডার রুমান ইমতিয়াজ তুষার জানান, প্রাকৃতিক দূর্যোগের সময় মানুষের জন্য নানা ধরনের ব্যবস্থা থাকলেও আসলে এসব মালিকানাহীন বা বন্যপ্রাণীদের জন্য কোন নিরাপদ আশ্রয়স্থল নেই। এখন পর্যন্ত  বিভিন্ন মাধ্যমে জানতে পেরেছি ইতিমধ্যেই নাকি সুন্দরবন থেকে মৃত ভেসে আসা ৩৯ টি চিত্রা হরিণ উদ্ধার করা হয়েছে। আমরা এর পক্ষ থেকে দুঃখ প্রকাশ করছি।
এটা আমরা কখনোই আশা করিনা। এই দূর্যোগকালীন মুহুর্তেও আমরা বিপদগ্রস্ত প্রাণীদের রক্ষায় প্রস্তুত ছিলাম যদি হরিণ টা কে আমরা আহত অবস্থায়ও উদ্ধার করতে পারতাম সেক্ষেত্রে অনেক টা খুশি হতাম কস্ট করে হলেও তাকে বাঁচিয়ে রাখতাম।
তিনি আরো জানান, বিষয় টি মহিপুর বন বিভাগকে জানানোর চেষ্টা করছি। বনবিভাগ, অ্যানিমেল লাভার্সের সহযোগিতায় আমরা এটাকে মাটিচাপা দেয়ার চেষ্টা করছি।
বাখ//আর