ঢাকা ১১:২৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

কর্ণফুলী নদীতে ড্রেজিং করতে এসে ক্রেন নদীতে পড়ে গেল

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০১:৫৪:২৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ মার্চ ২০২৪
  • / ৪৭৯ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
রাঙামাটি জেলা কাপ্তাই উপজেলা এবং চট্টগ্রাম জেলার রাঙ্গুনিয়া উপজেলার চন্দ্রঘোনা- রাইখালী ফেরীঘাটে রাঙ্গুনিয়া উপজেলাধীন অংশে কর্ণফুলী নদীতে ড্রেজিং এর কাজে ব্যবহৃত সড়ক ও জনপদ বিভাগের ক্রেনটি পানিতে ডুবে যায়। রবিবার দিবাগত রাত ৩ টার  দিকে ফেরির উপর থেকে নিয়ন্ত্রণ হারিযে ক্রেনটি  নদীতে পড়ে যায়। এতে কোন হতাহতে খবর পাওয়া যায়নি।
রাঙামাটি জেলা  সড়ক ও জনপদ বিভাগের উপ সহকারি প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম  বলেন, আমরা বিষয়টি শুনেছি, দুর্ঘটনার পর আমার লোক পাঠানো হয়েছে দ্রুত উদ্ধারের কাজ চলছে।তবে উদ্ধারের পর নদীর ড্রেজিংয়ের কাজ যথাসময়ে শুরু হবে।
প্রসঙ্গত: নাব্যতা সংকট ও জোয়ার ভাটার কারণে প্রায় সময় বন্ধ রাখতে হচ্ছে কাপ্তাই ও রাঙ্গুনিয়া উপজেলাধীন কর্ণফুলী নদীর চন্দ্রঘোনা- রাইখালী ফেরি চলাচল। এতে দীর্ঘ সময়ের জন্য খাগড়াছড়ি এবং রাঙামাটির সাথে বান্দরবান ও চট্রগ্রামের  যোগাযোগ ব্যবস্থায় বিড়ম্বনার সৃষ্টি হয়। ফলে বিভিন্ন স্থান থেকে সড়ক পথে ফেরি যোগে পার হতে আসা শত শত যানবাহন চালক এবং যাত্রীদের চরম দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে।
এ  নাব্যতা সংকটে প্রায়ই এমন পরিস্থিতির শিকার হতে হচ্ছে এই সড়কে চলাচলকারীদের। এতে করে সময় যেমন অপচয় হচ্ছে তেমনী চরম দূর্ভোগের শিকার হচ্ছেন ভুক্তভোগীরা। এ সমস্যা নিরসন ও নদীর তল দেশ ড্রেজিং করার জন্য ক্রেন আনা হলে সেটি রবিবার রাত ৩ টার দিকে ফেরির উপর থেকে নিয়ন্ত্রণ হারিযে নদীতে পড়ে যায়।
এই ড্রেজিং এর কারনে রবিবার (১০ মার্চ) হতে ভোর ৬ টা হতে ১৩ মার্চ পর্যন্ত ভোর ৫ টা পর্যন্ত ফেরি চলাচল বন্ধ থাকবে বলে জানানো হয় রাঙামাটি জেলা সড়ক ও জনপদ বিভাগের এক বিজ্ঞপ্তিতে।
বাখ//আর

নিউজটি শেয়ার করুন

কর্ণফুলী নদীতে ড্রেজিং করতে এসে ক্রেন নদীতে পড়ে গেল

আপডেট সময় : ০১:৫৪:২৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ মার্চ ২০২৪
রাঙামাটি জেলা কাপ্তাই উপজেলা এবং চট্টগ্রাম জেলার রাঙ্গুনিয়া উপজেলার চন্দ্রঘোনা- রাইখালী ফেরীঘাটে রাঙ্গুনিয়া উপজেলাধীন অংশে কর্ণফুলী নদীতে ড্রেজিং এর কাজে ব্যবহৃত সড়ক ও জনপদ বিভাগের ক্রেনটি পানিতে ডুবে যায়। রবিবার দিবাগত রাত ৩ টার  দিকে ফেরির উপর থেকে নিয়ন্ত্রণ হারিযে ক্রেনটি  নদীতে পড়ে যায়। এতে কোন হতাহতে খবর পাওয়া যায়নি।
রাঙামাটি জেলা  সড়ক ও জনপদ বিভাগের উপ সহকারি প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম  বলেন, আমরা বিষয়টি শুনেছি, দুর্ঘটনার পর আমার লোক পাঠানো হয়েছে দ্রুত উদ্ধারের কাজ চলছে।তবে উদ্ধারের পর নদীর ড্রেজিংয়ের কাজ যথাসময়ে শুরু হবে।
প্রসঙ্গত: নাব্যতা সংকট ও জোয়ার ভাটার কারণে প্রায় সময় বন্ধ রাখতে হচ্ছে কাপ্তাই ও রাঙ্গুনিয়া উপজেলাধীন কর্ণফুলী নদীর চন্দ্রঘোনা- রাইখালী ফেরি চলাচল। এতে দীর্ঘ সময়ের জন্য খাগড়াছড়ি এবং রাঙামাটির সাথে বান্দরবান ও চট্রগ্রামের  যোগাযোগ ব্যবস্থায় বিড়ম্বনার সৃষ্টি হয়। ফলে বিভিন্ন স্থান থেকে সড়ক পথে ফেরি যোগে পার হতে আসা শত শত যানবাহন চালক এবং যাত্রীদের চরম দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে।
এ  নাব্যতা সংকটে প্রায়ই এমন পরিস্থিতির শিকার হতে হচ্ছে এই সড়কে চলাচলকারীদের। এতে করে সময় যেমন অপচয় হচ্ছে তেমনী চরম দূর্ভোগের শিকার হচ্ছেন ভুক্তভোগীরা। এ সমস্যা নিরসন ও নদীর তল দেশ ড্রেজিং করার জন্য ক্রেন আনা হলে সেটি রবিবার রাত ৩ টার দিকে ফেরির উপর থেকে নিয়ন্ত্রণ হারিযে নদীতে পড়ে যায়।
এই ড্রেজিং এর কারনে রবিবার (১০ মার্চ) হতে ভোর ৬ টা হতে ১৩ মার্চ পর্যন্ত ভোর ৫ টা পর্যন্ত ফেরি চলাচল বন্ধ থাকবে বলে জানানো হয় রাঙামাটি জেলা সড়ক ও জনপদ বিভাগের এক বিজ্ঞপ্তিতে।
বাখ//আর