ঢাকা ০৪:০০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

উল্লাপাড়ায় সেলিনা মির্জা মুক্তি ও তাড়াশে মনিরুজ্জামান মনি চেয়ারম্যান নির্বাচিত

নিউজ ডেস্ক // বাংলা খবর বিডি
  • আপডেট সময় : ১১:৫৯:০৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪
  • / ৪৫২ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সেলিনা মির্জা মুক্তি ও তাড়াশ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মনিরুজ্জামান মনি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। ২১ মে মঙ্গলবার এ দু’উপজেলায়ই ইভিএমের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।

উল্লাপাড়া উপজেলায় মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে ৮৮ হাজার ১শ’ ৯২ ভোট পেয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সেলিনা মির্জা মুক্তি বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন । তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি নবী নেওয়াজ খাঁন বিন হেলিকপ্টার প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ২১ হাজার ৮শ’ ৬১ ভোট। দু’প্রার্থীর ভোটের ব্যবধান ৬৬ হাজার ৩শ’ ৩১ টি।

এছাড়া, তাড়াশ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি দোয়াত কলম প্রতীক নিয়ে ৪০ হাজার ১শ’৩১ ভোট পান। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক সঞ্জিত কুমার কর্মকার আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৩৫ হাজার ৬শ’ ২৭ ভোট। তাদের দুজনের ভোটের ব্যবধান মাত্র ৪ হাজার ৫শ’ ৪টি।

ভোট গণনা শেষে জেলা রিটার্নিং অফিসার গণপতি রায় বেসকরকারিভাবে উল্লাপাড়া ও তাড়াশ উপজেলার উক্ত ফলাফল ঘোষণা করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

উল্লাপাড়ায় সেলিনা মির্জা মুক্তি ও তাড়াশে মনিরুজ্জামান মনি চেয়ারম্যান নির্বাচিত

আপডেট সময় : ১১:৫৯:০৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সেলিনা মির্জা মুক্তি ও তাড়াশ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মনিরুজ্জামান মনি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। ২১ মে মঙ্গলবার এ দু’উপজেলায়ই ইভিএমের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।

উল্লাপাড়া উপজেলায় মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে ৮৮ হাজার ১শ’ ৯২ ভোট পেয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সেলিনা মির্জা মুক্তি বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন । তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি নবী নেওয়াজ খাঁন বিন হেলিকপ্টার প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ২১ হাজার ৮শ’ ৬১ ভোট। দু’প্রার্থীর ভোটের ব্যবধান ৬৬ হাজার ৩শ’ ৩১ টি।

এছাড়া, তাড়াশ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি দোয়াত কলম প্রতীক নিয়ে ৪০ হাজার ১শ’৩১ ভোট পান। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক সঞ্জিত কুমার কর্মকার আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৩৫ হাজার ৬শ’ ২৭ ভোট। তাদের দুজনের ভোটের ব্যবধান মাত্র ৪ হাজার ৫শ’ ৪টি।

ভোট গণনা শেষে জেলা রিটার্নিং অফিসার গণপতি রায় বেসকরকারিভাবে উল্লাপাড়া ও তাড়াশ উপজেলার উক্ত ফলাফল ঘোষণা করেন।