ঢাকা ০৬:৫৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

ইমরান খানের গ্রেপ্তার অবৈধ, অবিলম্বে মুক্তির নির্দেশ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১০:২৪:৩৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ মে ২০২৩
  • / ৪৪৬ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের গ্রেপ্তারকে বেআইনী ঘোষণা করে অবিলম্বে মুক্তির নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। এর আগে ইমরান খানের গ্রেপ্তারকে চ্যালেঞ্জ করে পিটিআইয়ের আবেদনের শুনানি করার সময় এক ঘন্টার মধ্যে তাকে সুপ্রিম কোর্টে হাজির করার নির্দেশ দেন প্রধান বিচারপতি।এদিকে, প্রধানমন্ত্রীকে লেখা এক চিঠিতে ইমরান খানের গ্রেপ্তার প্রক্রিয়ার নিন্দা জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভী। অন্যদিকে, সাবেক প্রধানমন্ত্রীর গ্রেপ্তারের জেরে দেশটিতে বিক্ষোভ-সহিংসতা অব্যাহত রয়েছে। এ পর্যন্ত নিহত হয়েছে আটজন। পাকিস্তানে নৈরাজ্য সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ।

নাটকীয় গ্রেপ্তারের দুইদিন পর উচ্চ আদালতে হাজির করা হয়েছেপাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে। দেশটির সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে তাকে আদালতে হাজির করেছে পুলিশ। দলীয় প্রধানের গ্রেপ্তারকে চ্যালেঞ্জ করে পিটিআইয়ের আবেদনের শুনানি করার সময় এ নির্দেশ দেন প্রধান বিচারপতি উমর আতা বন্দিয়াল। এসময় ইমরান খানের গ্রেপ্তার প্রক্রিয়াকে বিচার বিভাগীয় প্রতিষ্ঠানের জন্য অসম্মানের বলে অভিহিত করেন তিনি। গত মঙ্গলবার আদালত চত্বর থেকে আল কাদির ট্রাস্ট মামলায়দুর্নীতির দায়ে গ্রেপ্তার করা হয়দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে।

এর প্রতিবাদে সহিংস বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে দেশজুড়ে। পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ-পিটিআই এর সমর্থকদের সঙ্গে পুলিশের ব্যাপক সংঘর্ষে নিহত হয় বেশ কয়েকজন। এপর্যন্ত ১ হাজার ৪০০ বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বিবিসি। সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে পুলিশ স্টেশন সহ অনেক সরকারি স্থাপনা।

বুধবার প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফের লাহোরের বাড়িতেও হামলা চালায় ক্ষুব্ধ পিটিআই সমর্থকরা। সেখানে বেশকিছু গাড়িতে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ চালায় তারা। পরিস্থিতি মোকাবেলায় ইসলামাবাদ, পাঞ্জাব ও খাইবার পাখতুনখোয়াসহ কিছু এলাকায় সেনা মোতায়েন করা হয়েছে।

দেশজুড়ে ইমরান খানের দলের কর্মীরা যে কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে তা ‘ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ’ বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরীফ। সহিংসতার নিন্দা জানিয়ে তিনি বলেছেন, দেশের শত্রুদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়া হবে। বুধবার রাতে জাতির উদ্দেশে দেয়া ভাষণে এই হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

এদিকে, ইমরান খানকে গ্রেপ্তারের পর তার দলের শীর্ষস্থানীয় নেতাদেরও গ্রেপ্তার করা হচ্ছে।গিলগিট-বালতিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী খালিদ খুরশিদকে ইসলামাবাদে ‘গৃহবন্দি’ করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ।

পাকিস্তানজুড়ে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ায় সবাইকে সহিংসতা থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানিয়েছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস। পাশাপাশি ইমরান খানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার ক্ষেত্রে, আইনের সঠিক ধারা অনুসরণেরআহŸান জানিয়েছেন তিনি।

গত বছর এপ্রিলে পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদে অনাস্থা ভোটে হেরে প্রধানমন্ত্রীর পদ হারান ইমরান খান। এরপর থেকে তিনি আগাম নির্বাচনের জন্য প্রচারণা চালাচ্ছিলেন। তবে, মামলায় দোষী সাব্যস্ত হলে আজীবনের জন্য নির্বাচনে অযোগ্য বলে ঘোষণা করা হতে পারে ইমরান খানকে। এ বছরের শেষ দিকে দেশটিতে নির্বাচন হওয়ার কথা।

নিউজটি শেয়ার করুন

ইমরান খানের গ্রেপ্তার অবৈধ, অবিলম্বে মুক্তির নির্দেশ

আপডেট সময় : ১০:২৪:৩৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ মে ২০২৩

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের গ্রেপ্তারকে বেআইনী ঘোষণা করে অবিলম্বে মুক্তির নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। এর আগে ইমরান খানের গ্রেপ্তারকে চ্যালেঞ্জ করে পিটিআইয়ের আবেদনের শুনানি করার সময় এক ঘন্টার মধ্যে তাকে সুপ্রিম কোর্টে হাজির করার নির্দেশ দেন প্রধান বিচারপতি।এদিকে, প্রধানমন্ত্রীকে লেখা এক চিঠিতে ইমরান খানের গ্রেপ্তার প্রক্রিয়ার নিন্দা জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভী। অন্যদিকে, সাবেক প্রধানমন্ত্রীর গ্রেপ্তারের জেরে দেশটিতে বিক্ষোভ-সহিংসতা অব্যাহত রয়েছে। এ পর্যন্ত নিহত হয়েছে আটজন। পাকিস্তানে নৈরাজ্য সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ।

নাটকীয় গ্রেপ্তারের দুইদিন পর উচ্চ আদালতে হাজির করা হয়েছেপাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে। দেশটির সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে তাকে আদালতে হাজির করেছে পুলিশ। দলীয় প্রধানের গ্রেপ্তারকে চ্যালেঞ্জ করে পিটিআইয়ের আবেদনের শুনানি করার সময় এ নির্দেশ দেন প্রধান বিচারপতি উমর আতা বন্দিয়াল। এসময় ইমরান খানের গ্রেপ্তার প্রক্রিয়াকে বিচার বিভাগীয় প্রতিষ্ঠানের জন্য অসম্মানের বলে অভিহিত করেন তিনি। গত মঙ্গলবার আদালত চত্বর থেকে আল কাদির ট্রাস্ট মামলায়দুর্নীতির দায়ে গ্রেপ্তার করা হয়দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে।

এর প্রতিবাদে সহিংস বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে দেশজুড়ে। পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ-পিটিআই এর সমর্থকদের সঙ্গে পুলিশের ব্যাপক সংঘর্ষে নিহত হয় বেশ কয়েকজন। এপর্যন্ত ১ হাজার ৪০০ বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বিবিসি। সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে পুলিশ স্টেশন সহ অনেক সরকারি স্থাপনা।

বুধবার প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফের লাহোরের বাড়িতেও হামলা চালায় ক্ষুব্ধ পিটিআই সমর্থকরা। সেখানে বেশকিছু গাড়িতে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ চালায় তারা। পরিস্থিতি মোকাবেলায় ইসলামাবাদ, পাঞ্জাব ও খাইবার পাখতুনখোয়াসহ কিছু এলাকায় সেনা মোতায়েন করা হয়েছে।

দেশজুড়ে ইমরান খানের দলের কর্মীরা যে কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে তা ‘ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ’ বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরীফ। সহিংসতার নিন্দা জানিয়ে তিনি বলেছেন, দেশের শত্রুদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়া হবে। বুধবার রাতে জাতির উদ্দেশে দেয়া ভাষণে এই হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

এদিকে, ইমরান খানকে গ্রেপ্তারের পর তার দলের শীর্ষস্থানীয় নেতাদেরও গ্রেপ্তার করা হচ্ছে।গিলগিট-বালতিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী খালিদ খুরশিদকে ইসলামাবাদে ‘গৃহবন্দি’ করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ।

পাকিস্তানজুড়ে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ায় সবাইকে সহিংসতা থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানিয়েছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস। পাশাপাশি ইমরান খানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার ক্ষেত্রে, আইনের সঠিক ধারা অনুসরণেরআহŸান জানিয়েছেন তিনি।

গত বছর এপ্রিলে পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদে অনাস্থা ভোটে হেরে প্রধানমন্ত্রীর পদ হারান ইমরান খান। এরপর থেকে তিনি আগাম নির্বাচনের জন্য প্রচারণা চালাচ্ছিলেন। তবে, মামলায় দোষী সাব্যস্ত হলে আজীবনের জন্য নির্বাচনে অযোগ্য বলে ঘোষণা করা হতে পারে ইমরান খানকে। এ বছরের শেষ দিকে দেশটিতে নির্বাচন হওয়ার কথা।