ঢাকা ০৭:৫৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় প্রথম বাংলাদেশি হাফেজ

অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০২:০৬:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
  • / ৪৯৩ বার পড়া হয়েছে
বাংলা খবর বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ইরানে অনুষ্ঠিত শিক্ষার্থীদের জন্য আয়োজিত অষ্টম আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় প্রথম হয়েছে আলজেরিয়ায় তৃতীয় স্থান অর্জনকারী বাংলাদেশি হাফেজ বশির আহমেদ। এই প্রতিযোগিতায় পুরস্কার জিতেছেন আরও দুই বাংলাদেশি শিক্ষার্থী।

চলতি সপ্তাহে ইরানের শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং আওকাফ ও দাতব্য বিষয়ক সংস্থা যৌথভাবে এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছে। ইরানের ৪০তম আন্তর্জাতিক পবিত্র কোরআন প্রতিযোগিতার সঙ্গে মিল রেখে একযোগে শিক্ষার্থীদের জন্য এই আয়োজন করা হয়।

প্রতিযোগিতায় কোরআন তেলাওয়াত ও হিফজ, অর্থাৎ সম্পূর্ণ কোরআন মুখস্ত করার পৃথক দুটি বিভাগে অংশগ্রহণ করে ছেলে ও মেয়েরা।

বিচারক প্যানেল সূত্রের বরাত দিয়ে ইন্টারন্যাশনাল কোরআন নিউজ এজেন্সি তাদের ওয়েবসাইটে জানায়, সম্পূর্ণ কোরআন মুখস্থ করার ক্ষেত্রে অর্থাৎ হিফজে প্রথম স্থান অর্জন করেছেন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী বশির আহমদ। আর ইরানের সৈয়দ মোহাম্মদ সাদেক হোসেইনি দ্বিতীয় এবং নাইজেরিয়ার আবদুল্লাহি গিরা তৃতীয় পুরস্কার লাভ করেছে।

এ ছাড়া মেয়েদের হিফজ বা কোরআন মুখস্থ বিভাগে তৃতীয় হয়েছে বাংলাদেশের মাইমানুয়া মুনির আজ-জামান। তবে, এক্ষেত্রে শীর্ষ পুরস্কার জিতেছেন ইরানের মোহান্না কানবারি শিরজিলি ও দ্বিতীয় হয়েছে সেনেগালের দিয়াতারা আন্দিয়া বুসু।

এছাড়া কোরআন তেলাওয়াতের ছেলেদের বিভাগে তৃতীয় হয়েছে আরেক বাংলাদেশি শিক্ষার্থী মুশফিক রহমান। এই বিভাগে প্রথম হয়েছে ইরানের মেহেদি আকবরী জারিন ও রানার আপ হয়েছে পাকিস্তানের মুহাম্মদ আবু বকর।

কোরআন তেলাওয়াতে মেয়েদের বিভাগে শীর্ষ স্থান লাভ করেছে ইরানের আসমা ফালাকি। এক্ষেত্রে আফগানিস্তানের রেহানেহ মোগাদ্দাস ও ইরাকের জাহরা তাগি আল-মাতলাশি দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান লাভ করেছে।

প্রাথমিক রাউন্ডের পর ১৫টি দেশের মোট ৩০ জন শিক্ষার্থী প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বে অংশগ্রহণ করে। আফগানিস্তান, ইন্দোনেশিয়া, উগান্ডা, বাংলাদেশ, পাকিস্তান, তুরস্ক, তিউনিসিয়া, সেনেগাল, ইরাক, ইরান, ওমান, গাম্বিয়া, মালয়েশিয়া, নাইজেরিয়া ও নিউজিল্যান্ড থেকে আসা শিক্ষার্থীরা এ পর্বে অংশ নেয়।

হবিগঞ্জের লাখাই উপজেলার বেগুনাই গ্রামের সহকারী অধ্যাপক মাওলানা মো. আব্দুর রশিদ ও বুশরা চৌধুরীর ছেলে হাফেজ বশির মারকাজুত তাহফিজ ইন্টারন্যাশনাল মাদরাসার ছাত্র।

এর ১০ দিন আগেই আলজেরিয়ার রাজধানী আলজিয়ার্সে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় তৃতীয় স্থান অর্জন করেন হাফেজ বশির। পাশাপাশি ২০২১ সালে এন টিভিতে তিনি প্রথম হয়েছিলেন এবং ২০২২ সালে হুফফাজুল কোরআন ফাউন্ডেশনের প্রতিযোগিতায়ও তার প্রথম স্থান অর্জন করার রেকর্ড রয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় প্রথম বাংলাদেশি হাফেজ

আপডেট সময় : ০২:০৬:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ইরানে অনুষ্ঠিত শিক্ষার্থীদের জন্য আয়োজিত অষ্টম আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় প্রথম হয়েছে আলজেরিয়ায় তৃতীয় স্থান অর্জনকারী বাংলাদেশি হাফেজ বশির আহমেদ। এই প্রতিযোগিতায় পুরস্কার জিতেছেন আরও দুই বাংলাদেশি শিক্ষার্থী।

চলতি সপ্তাহে ইরানের শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং আওকাফ ও দাতব্য বিষয়ক সংস্থা যৌথভাবে এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছে। ইরানের ৪০তম আন্তর্জাতিক পবিত্র কোরআন প্রতিযোগিতার সঙ্গে মিল রেখে একযোগে শিক্ষার্থীদের জন্য এই আয়োজন করা হয়।

প্রতিযোগিতায় কোরআন তেলাওয়াত ও হিফজ, অর্থাৎ সম্পূর্ণ কোরআন মুখস্ত করার পৃথক দুটি বিভাগে অংশগ্রহণ করে ছেলে ও মেয়েরা।

বিচারক প্যানেল সূত্রের বরাত দিয়ে ইন্টারন্যাশনাল কোরআন নিউজ এজেন্সি তাদের ওয়েবসাইটে জানায়, সম্পূর্ণ কোরআন মুখস্থ করার ক্ষেত্রে অর্থাৎ হিফজে প্রথম স্থান অর্জন করেছেন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী বশির আহমদ। আর ইরানের সৈয়দ মোহাম্মদ সাদেক হোসেইনি দ্বিতীয় এবং নাইজেরিয়ার আবদুল্লাহি গিরা তৃতীয় পুরস্কার লাভ করেছে।

এ ছাড়া মেয়েদের হিফজ বা কোরআন মুখস্থ বিভাগে তৃতীয় হয়েছে বাংলাদেশের মাইমানুয়া মুনির আজ-জামান। তবে, এক্ষেত্রে শীর্ষ পুরস্কার জিতেছেন ইরানের মোহান্না কানবারি শিরজিলি ও দ্বিতীয় হয়েছে সেনেগালের দিয়াতারা আন্দিয়া বুসু।

এছাড়া কোরআন তেলাওয়াতের ছেলেদের বিভাগে তৃতীয় হয়েছে আরেক বাংলাদেশি শিক্ষার্থী মুশফিক রহমান। এই বিভাগে প্রথম হয়েছে ইরানের মেহেদি আকবরী জারিন ও রানার আপ হয়েছে পাকিস্তানের মুহাম্মদ আবু বকর।

কোরআন তেলাওয়াতে মেয়েদের বিভাগে শীর্ষ স্থান লাভ করেছে ইরানের আসমা ফালাকি। এক্ষেত্রে আফগানিস্তানের রেহানেহ মোগাদ্দাস ও ইরাকের জাহরা তাগি আল-মাতলাশি দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান লাভ করেছে।

প্রাথমিক রাউন্ডের পর ১৫টি দেশের মোট ৩০ জন শিক্ষার্থী প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বে অংশগ্রহণ করে। আফগানিস্তান, ইন্দোনেশিয়া, উগান্ডা, বাংলাদেশ, পাকিস্তান, তুরস্ক, তিউনিসিয়া, সেনেগাল, ইরাক, ইরান, ওমান, গাম্বিয়া, মালয়েশিয়া, নাইজেরিয়া ও নিউজিল্যান্ড থেকে আসা শিক্ষার্থীরা এ পর্বে অংশ নেয়।

হবিগঞ্জের লাখাই উপজেলার বেগুনাই গ্রামের সহকারী অধ্যাপক মাওলানা মো. আব্দুর রশিদ ও বুশরা চৌধুরীর ছেলে হাফেজ বশির মারকাজুত তাহফিজ ইন্টারন্যাশনাল মাদরাসার ছাত্র।

এর ১০ দিন আগেই আলজেরিয়ার রাজধানী আলজিয়ার্সে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় তৃতীয় স্থান অর্জন করেন হাফেজ বশির। পাশাপাশি ২০২১ সালে এন টিভিতে তিনি প্রথম হয়েছিলেন এবং ২০২২ সালে হুফফাজুল কোরআন ফাউন্ডেশনের প্রতিযোগিতায়ও তার প্রথম স্থান অর্জন করার রেকর্ড রয়েছে।